সোমবার, ১৮ নভেম্বর ২০১৯ ইং

নিজস্ব প্রতিবেদক

২৬ জানুয়ারী, ২০১৯ ০০:১০

নাগরিক নাট্যাঙ্গনের ‘গহর বাদশা ও বানেছা পরী’ মঞ্চায়ন

আজ বিবর্তনের ‘ব্রাত্য আমি মন্ত্রহীন’

সিলেটে মঞ্চায়িত হলো ঢাকার নাগরিক নাট্যাঙ্গনের ২০তম প্রযোজনা ‘গহর বাদশা ও বানেছা পরী’।

শুক্রবার (২৫ জানুয়ারি) সন্ধ্যায় নগরীর কবি নজরুল অডিটোরিয়ামে মঞ্চস্থ হয়েছে নাটকটি। দক্ষিণাঞ্চলের লোকগাথা অবলম্বনে নাটকটির পূনর্কথন ও নির্দেশনা দিয়েছেন হৃদি হক। সেই সঙ্গে বানেছা পরী চরিত্রেও অভিনয় করেছেন তিনি।

রাজ্যের উজিরের চক্রান্তে গীলামাইট বনে গহর বাদশার দুর্দশা ও বানেছা পরীর সঙ্গে তার প্রেমের আখ্যান নিয়ে এগিয়েছে নাটকটির গল্প। সবশেষে জয় হয় সত্যের। সকল ষড়যন্ত্রের বাধা ডিঙিয়ে নিজের বুদ্ধি আর মেধা দিয়ে ১২ বছর পর গহর বাদশা জয় করেন নিজের হারানো রাজ্য। প্রজাদের জীবনে ফিরে আসে সুখের সময়।

প্রায় ৫০ জনের একটি দল এ নাটকে কাজ করেছেন। নাটকটির কোরিওগ্রাফি করেছেন নৃত্যশিল্পী ওয়ার্দা রিহাব। সঙ্গীত পরিচালনা করেছেন কামরুজ্জামান রনি। সেট পরিকল্পনায় সাজু খাদেম এবং আলোক পরিকল্পনায় ছিলেন ঠান্ডু রায়হান।

নাটক শেষে চলমান প্রথম জাতীয় লোক নাট্য উৎসবের স্মারকের মোড়ক উন্মোচন করেন ভারতীয় সহকারী হাই কমিশন সিলেটের সেকেন্ড সেক্রেটারি গিরিশ পূজারী ও গ্রুপ থিয়েটার ফেডারেশনের কো-চেয়ারম্যান লাকী ইনাম।

এ সময় মঞ্চে উপস্থিত ছিলেন সম্মিলিত নাট্য পরিষদ সিলেটের প্রধান পরিচালক অরিন্দম দত্ত চন্দন ও গ্রুপ থিয়েটার ফেডারেশনের নির্বাহী সদস্য ইয়াসির খান।

নাট্যমঞ্চ সিলেটের আয়োজনে চলমান এই প্রথম জাতীয় লোক নাট্য উৎসবের আজ (শনিবার) ৭ম দিন। আজ নগরের কবি নজরুল অডিটোরিয়ামে সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় ‘ব্রাত্য আমি মন্ত্রহীন’ নাটকটি মঞ্চস্থ করবে যশোরের নাট্যদল বিবর্তন।

সাধনা আহমেদের রচনায় নাটকটির নির্দেশনা দিয়েছেন ইউসুফ হাসান অর্ক।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত