সোমবার, , ১০ ডিসেম্বর ২০১৮ ইং

শাবি প্রতিনিধি

০৬ ডিসেম্বর, ২০১৮ ১৮:২২

শাবি ছাত্রলীগ নেতার বিরুদ্ধে নিরাপত্তা কর্মীকে মারধরের অভিযোগ

সিলেটের  শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে দায়িত্ব পালনরত অবস্থায় এক নিরাপত্তা কর্মীকে মারধর করার অভিযোগ উঠেছে ছাত্রলীগের এক নেতার বিরুদ্ধে।

মারধরকারী নৃবিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থী আসিফ হোসেন রনি শাখা ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক। আর মারধরের শিকার লিটন দেব প্রক্টরিয়াল বডির অধীনে কর্মরত সিকিউরিডি গার্ড।

লিটন দেব বলেন, “গত মঙ্গলবার দুপুরে শহীদ মিনারের সামনে বাইরে থেকে ঘুরতে আসা এক প্রেমিক যুগলকে অসামাজিক কাজে লিপ্ত থাকা অবস্থায় আটক করে প্রক্টর অফিসে নিয়ে আসতে থাকি। এই যুগল নিজেদের রনির পরিচিত বলে দাবি করেন। পরে প্রক্টর অফিসে আসার পথে রনি এসে আমাকে এলোপাথাড়ি কিল-ঘুষি ও চড়-থাপ্পড় মারতে থাকেন।”

লিটন বলেন, আমি দৌঁড়ে প্রক্টর অফিসে এসে আত্মরক্ষার চেষ্টা করলে এখানে কর্তব্যরতরা আহত অবস্থায় আমাকে চিকিৎসার জন্য ওসমানী হাসপাতালে নিয়ে ভর্তি করেন।

অভিযোগের বিষয়ে আসিফ হোসেন রনি বলেন, বাইরে থেকে আমার এক ভাই ও বোন ক্যাম্পাসে ঘুরতে এসেছিল। তাদের সাথে অসৌজন্যমূলক আচরণ করেছে ওই গার্ড। তাই আমি তাকে একটি চড় মেরেছি। তার বিরুদ্ধে ভয়ভীতি দেখিয়ে বহিরাগতদের কাছ থেকে নিয়মিত টাকা আদায়েরও অভিযোগ আছে।

এ ঘটনায় বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর জহীর উদ্দিন আহমেদ বলেন, আমরা বিষয়টি সম্পর্কে অবগত আছি। ঘটনার তদন্তে জন্য একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে।

তিন সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত কমিটির প্রধান হলেন লোকপ্রশাসন বিভাগের সহকারী প্রক্টর মোহাম্মদ সামিউল ইসলাম। অন্য সদস্যরা হলেন, সহকারী প্রক্টর আবু হেনা পহিল এবং শাকিল ভূইয়া।

মোহাম্মদ সামিউল ইসলাম বলেন, ঘটনাটি আমরা তদন্ত করে দেখছি। তদন্তের পর পুরো বিষয়টি সম্পর্কে বিস্তারিত বলা যাবে।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত