বুধবার, ২৬ জুন ২০১৯ ইং

হৃদয় দাশ শুভ

২২ মে, ২০১৯ ২২:৫৭

ভারতের লোকসভা নির্বাচন ও কিছু কথা

রাত পোহালেই ভারতের লোকসভা নির্বাচনের ফলাফল ঘোষনা করা হবে। পৃথিবীর সবচেয়ে বড় গনতান্ত্রিক দেশের নির্বাচনের ফলাফলের উপর নজর থাকবে সবারই। প্রতিবেশী রাষ্ট্র হিসেবে আমাদের নজরটাও কম থাকবে না এই ফলাফলের দিকে। এই নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা হয়েছে মূলত ক্ষমতাসীন বিজেপি বনাম অনান্য বিরোধী দল।

যদিও সব জায়গায় যে বিরোধীরা জোট গড়তে পেরেছে তা কিন্তু নয়!  যেমন দিল্লীর ৭ টি লোকসভা আসনে আম আদমি পার্টি ও কংগ্রেস স্বতন্ত্রভাবে নির্বাচন করেছে, সেখানে আম আদমি পার্টির প্রধান অরবিন্দ কেজরিওয়াল কংগ্রেসের শীলা দীক্ষিতের সাথে জোট বাঁধার অনেক চেষ্টা করলেও শীলা দীক্ষিত রাজি হন নি। বুথ ফেরত সমীক্ষায় দেখা গেছে ওই সাতটি আসনেই জিতছে বিজেপি।

অধিকাংশ বুথফেরত জরিপ যদিও ইংগিত দিচ্ছে আবার রাষ্ট্রক্ষমতায় আসছে বিজেপিই কিন্তু তা নাকচ করে দিচ্ছে বিরোধী দলগুলো।

যদি বুথফেরত জরিপগুলোকে সত্য বলে ধরে নেই তাহলে বুঝাই যাচ্ছে আবার ক্ষমতায় আসছে কট্টর হিন্দুত্ববাদী মোদি সরকার। যারা প্রগতিশীল মানুষ ও সেক্যুলারিজমের চর্চা করেন তাদের জন্য এটা অবশ্যই বড় একটা ধাক্কা। গত পাঁচ বছরে মোদী সরকারের মটো ছিলো "তীব্র হিন্দুত্ববাদ" ছড়ানো,যা তারা খুব ভালোভাবে ছড়াতে পেরেছেও।

"জয় শ্রী রাম" কে তারা রাজনৈতিক স্লোগান হিসেবে ব্যবহার করে যাচ্ছে এবং এই স্লোগান দিয়ে তরুণ প্রজন্মের মধ্যে একধরনের ক্রেজ তারা তৈরী করতে পেরেছে। এই "জয় শ্রী রাম" স্লোগান দিয়েই ভারতের বিভিন্ন জায়গায় ভিন্ন মতাবলম্বী মানুষের উপর হামলা হয়েছে, আগামী পাঁচ বছরে এই ধরনের হামলার সংখ্যা আরও বাড়বে।

ধর্মভিত্তিক রাজনীতি কখনো কোন দেশের জন্য মঙ্গল বয়ে আনে না, ধর্মভিত্তিক রাজনৈতিকরনের ফলে শুধুমাত্র সংঘাত তৈরী হয় কারন ধর্মভিত্তিক রাজনীতি তৈরী করে ধর্মান্ধ রাজনৈতিক নেতা ও কর্মীর।

নেপালের মত দেশ যেখানে ধর্মভিত্তিক রাষ্ট্রচিন্তা থেকে সরে এসেছে সেখানে উপমহাদেশের বৃহত্তম দেশ ভারত আবার কেন পশ্চাদপদ হচ্ছে তা ঠিক বোধগম্য হচ্ছে না।

প্রায় ১০০ কোটি ভোটারের মতামত কে অবশ্যই প্রাধান্য দিতে হবে,সন্মান করতে হবে। তারা সিদ্ধান্ত নিবে কে হবেন তাদের নেতা, তাদের প্রধানমন্ত্রী। কিন্তু আমার প্রশ্ন হলো বাংলাদেশের কিছু মানুষ বিজেপির এই উথানে খুব আনন্দিত ও পুলকিত। তারা বিজেপি কে সমর্থন দিচ্ছে, তাদের স্লোগান কপি করছে!

আমি প্রতিনিয়ত একটা কথা ভাবি, আজ যারা বিজেপির এই উথানে এত আনন্দিত, তারা কি তখনও আনন্দিত হবেন যখন এ বাংলাদেশেও ধর্মভিত্তিক রাজনৈতিক দল ক্ষমতায় আসবে?

আজ যারা গনতন্ত্র ও ভোটারদের মতামতের ধোঁয়া তুলে উগ্র হিন্দুত্ববাদী দল বিজেপি কে সাপোর্ট করছেন কাল যদি বাংলাদেশে কখনও জামায়াতে ইসলামী, হেফাজতে ইসলামের মত দল ভোটারদের ভোট নিয়ে রাষ্ট্র ক্ষমতায় অধিষ্ঠিত হয় তখন আপনাদের কেমন লাগবে?

  • হৃদয় দাশ শুভ: অনলাইন এক্টিভিস্ট ও সংবাদকর্মী।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত