বুধবার, ২৬ জুন ২০১৯ ইং

সিলেটটুডে ডেস্ক

৩১ মে, ২০১৯ ০২:০৩

অতিরিক্তি ঘুমেও স্মৃতিশক্তির ক্ষতি

অপর্যাপ্ত ঘুম যে স্মৃতিশক্তি লোপসহ নানা শারীরিক সমস্যার কারণ, তা কম-বেশি সবারই জানা। তবে এ যুক্তিতে বেশি সময় ধরে সুখনিদ্রায় হারিয়ে যাওয়াও বুদ্ধিমানের কাজ হবে না। কারণ নতুন গবেষণা জানাচ্ছে, প্রতি রাতে ৫ ঘণ্টার কম ঘুমে স্মৃতিশক্তির যে ক্ষতি, ঠিক একই ক্ষতি ৯ ঘণ্টার ঘুমেও। খবর দ্য ডেইলি মেইল।

গবেষকরা এ গবেষণার জন্য চার লাখ লোকের স্মৃতিশক্তির পরীক্ষা করেন। তারা পরীক্ষায় অংশ নেয়া লোকদের আগের স্মৃতি থেকে ছয় জোড়া কার্ডের অবস্থান মেলাতে বলা হয়। এতে দেখা যায়, যারা রাতে ৭ ঘণ্টার মতো ঘুমান, তারা কার্ডগুলো মেলানোর কাজে ভালো করছেন। কিন্তু যারা ৯ ঘণ্টা ঘুমান তারা এ কাজে ঠিক ৫ ঘণ্টা কিংবা তার কম ঘুমানো ব্যক্তিদের মতোই ভুল করছেন। ওই কার্ড গেমে তাদের ভুল করার হার বেশি ছিল—৫ শতাংশ। একই সঙ্গে যারা ১০ ঘণ্টারও বেশি ঘুমান, তাদের ভুলের হার ছিল আরো বেশি—১১ শতাংশ।

গবেষকদের দাবি, দীর্ঘ সময় ধরে ঘুমালে ব্যক্তির চিন্তাশক্তির ওপর মারাত্মক প্রভাব ফেলে। এর ফল হয় ঠিক কম ঘুমানো ব্যক্তিদের মতোই। তাছাড়া যারা দীর্ঘ সময় ঘুমান তাদের ঘুম ভালো হয় না, যা মস্তিষ্কের বিভিন্ন অংশের মধ্যে যোগাযোগ ব্যাহতের পাশাপাশি সেগুলোকে সংজ্ঞাবিষয়ক নানা সমস্যায় ফেলে।

গবেষণাটির জ্যেষ্ঠ গবেষক ইউনিভার্সিটি কলেজ লন্ডনের ড. ভিক্টোরিয়া গারফিল্ড বলেন, কিছু মানুষ মনে করে, বিছানায় শুয়ে যতক্ষণ ইচ্ছা ততক্ষণ ঘুমানোয় কোনো সমস্যা নেই। কিন্তু আমাদের গবেষণায় দেখা গেছে, দীর্ঘ সময় ঘুমানো স্মরণশক্তির ওপর নেতিবাচক প্রভাব ফেলে।

এদিকে প্রধান গবেষক আলবার্ট হেনরি বলেন, আমরা দেখেছি স্বল্প অথবা দীর্ঘ ঘুম উভয়ই স্মৃতিভ্রংশের ঝুঁকির সঙ্গে সম্পর্কিত। তবে এ ব্যাপারে খুব কম তথ্যপ্রমাণ আমাদের হাতে আছে। বিষয়টি নিশ্চিত হতে অধিকতর গবেষণার প্রয়োজন। গবেষণাপত্রটি ইন্টারন্যাশনাল জার্নাল অব এপিডেমিওলজি সাময়িকীতে প্রকাশিত হয়েছে।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত