আজ বুধবার, , ২৩ মে ২০১৮ ইং

জামালগঞ্জ প্রতিনিধি

১৮ জানুয়ারী, ২০১৮ ২২:০৯

জামালগঞ্জ ইউপি সচিবের বিরুদ্ধে অমানবিক আচরণের অভিযোগ

সুনামগঞ্জের জামালগঞ্জ উপজেলার ইউপি সচিব অজিত রায়ের কর্তৃক গ্রাম পুলিশের অবসরপ্রাপ্ত দফাদারের সাথে নিষ্ঠুর ও অমানবিক আচরণের লিখিত অভিযোগ পাওয়া গেছে।

বুধবার (১৭ জানুয়ারি) বিকেলে জামালগঞ্জ সদর ইউনিয়নের অবসরপ্রাপ্ত দফাদার বর্তমান জামালগঞ্জ উত্তর ইউনিয়নের লম্বাবাঁকের বাসিন্দা আব্দুল ওয়াহাব মিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বরাবরে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন।

লিখিত অভিযোগে উল্লেখ করেছেন, আমি জামালগঞ্জ সদর ইউনিয়নে ৩০ বছর সুনামের সাথে কর্মরত ছিলাম। কর্মরত থাকা অবস্থায় পরিষদের সচিব অজিত রায় আমাকে মৌখিকভাবে অবসরের কথা বললে আমি লিখিত ভাবে বিদায় চাইলে, অজিত রায় আমাকে সাফ জানিয়ে দেন অফিসে আর না আসার জন্য। আমি অল্প শিক্ষিত নিরীহ মানুষ, তাই অজিত রায়ের কথা মত মৌখিক অবসরে চলে যাই।

অভিযোগে আরও উল্লেখ করেন, পরবর্তীতে জেলা প্রশাসক মহোদয়ের কাছে একটি অভিযোগ নিয়ে গেলে আমাকে সার্ভিস বুক নিয়ে যেতে বলেন। আমি পরে অজিত রায়ের কাছে গেলে তিনি আমাকে জানান, উনার কাছে আমার কোন ফাইল ও কাগজপত্র নেই।

নিরুপায় হয়ে ২ বছর ধরে ফাইল খোজাখোজি করে কোন লাভ হয় নি। পরে সদর ইউনিয়নের বর্তমান চেয়ারম্যান সাজ্জাদ মাহমুদ তালুকদারকে বিষয়টি জানালে তিনি কাগজপত্রগুলো বের করে দেন। আমি হার্টের রোগী সবসময় বিভিন্ন হাসপাতালে যেতে হয়। টাকার অভাবে আমার চিকিৎসা করাতে পারছি না।

জামালগঞ্জ সদর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান সাজ্জাদ মাহমুদ তালুকদার বলেন, আমার কাছে বিগত তিন মাস আগে এসে দফাদার ওয়াহাব মিয়া মৌখিকভাবে জানিয়েছিলেন বিষয়টি দেখার জন্য।

এ বিষয়ে ইউপি সচিব অজিত রায় বলেন, আমার বিরুদ্ধে অভিযোগ সম্পূর্ণ মিথ্যা, তদন্তে সত্য প্রকাশিত হবে।

জামালগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. শামীম আল ইমরান বলেন, অভিযোগ পেয়েছি। তদন্ত করে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত