শুক্রবার, ২৪ মে ২০১৯ ইং

ছাতক প্রতিনিধি

১১ মার্চ, ২০১৯ ২১:৪০

ব্যালটে সিল দিয়ে ফেঁসে গেলেন ২ সহকারী প্রিজাইডিং কর্মকর্তা

পঞ্চম উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে ছাতকে উপজেলায় ভোট গ্রহণ চলাকালে অবৈধভাবে ব্যালট পেপারে সিল মারার অপরাধে দুই সহকারী প্রিজাইডিং কর্মকর্তাকে হাতেনাতে আটকের পর তাদের কারাদণ্ড প্রদান করেছেন ম্যাজিস্ট্রেট।

ঘটনাটি রোববার (১০ মার্চ) সকালে সুনামগঞ্জের ছাতক উপজেলার কালারুখা লতিফিয়া ইসলামিয়া দাখিল মাদ্রাসা কেন্দ্রে ঘটে।

অভিযুক্তরা হলেন, সহকারী প্রিজাইডিং অফিসার উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কার্যালয়ের সহকারী পরিদর্শক পিন্টু দাস ও লক্ষ্মীপুর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক নুরুল হক।

ছাতক উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তা ও উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোজাম্মেল হক ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, নির্বাচনে দায়িত্বপ্রাপ্ত ম্যাজিস্ট্রেট ছাতকে উপজেলায় ভোট গ্রহণ চলাকালে নিজেদের পছন্দের প্রার্থীকে বিজয়ী করার উদ্দেশ্য নিয়ে অবৈধভাবে ব্যালট পেপারে সিল মারা অবস্থায় তাদেরকে হাতেনাতে আটক করে। পরে তাদেরকে  আসামী করে ছাতক থানায় একটি মামলা (নং-০৭) দায়ের করা হয়।

তিনি আরো জানান, ব্যালট পেপারে অবৈধভাবে সিলা মারার দায়ে তাদের বিরুদ্ধে উপজেলা পরিষদ নির্বাচন বিধিমালা ২০১৩ এর ৮১ ধারা মোতাবেক পরবর্তী ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য নির্দেশনা চেয়ে নির্বাচন কমিশন ও উপজেলা নির্বাচন অফিসার বরাবরে প্রতিবেদন দেয়া হয়েছে।

এদিকে সোমবার আটককৃতদের সুনামগঞ্জ জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে বলেও জানান তিনি।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত