বুধবার, ২২ মে ২০১৯ ইং

নিজস্ব প্রতিবেদক

২৬ এপ্রিল, ২০১৯ ০০:২৬

সিলেটে তাপদাহ থাকবে আরো দুইদিন

তীব্র তাপদাহে পুড়ছে সিলেট। বৃহস্পতিবার দিনভর ছিলো কাটফাটা রোধ আর ভ্যাপসা গরম। এমন তাপদাহ আরও দুই দিন অব্যাহত থাকবে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর। তবে দুৃদিন পর বৃষ্টি নেমে তামপাত্রা কমতে পারে বলে জানিয়েছেন আবহাওয়া অফিসের কর্মকর্তারা।

বৃহস্পতিবার (২৫ এপ্রিল) সিলেটের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল ৩৮ দশমিক ৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এ তাপমাত্রা আগামী ২৭ এপ্রিল পর্যন্ত অব্যাহত থাকতে পারে বলে সিলেট আবহাওয়া অফিস সূত্রে  জানা গেছে।

সিলেটের সাথে সাথে বৃহস্পতিবার সারাদেশের তাপমাত্রা প্রায় ৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস বেড়ে ৪০ ডিগ্রির কাছাকাছি গিয়ে পৌঁছেছে। আবহাওয়া অধিদপ্তর জানিয়েছে, বৃহস্পতিবার বেলা ২টার দিকে দেশের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল খুলনায় ৩৯ দশমিক ৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এ সময় রাজধানী ঢাকার তাপমাত্রা ছিল ৩৮ দশমিক ২ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

গেলো কয়েক দিন ধরে অফিসগামী মানুষ, শ্রমিক, স্কুলগামী শিক্ষার্থী এবং অল্প বয়সের শিশুরা গরম ও তীব্র তাপদাহে অতিষ্ঠ হয়ে পড়েছে। সিলেট আবহাওয়া অফিসের সিনিয়র আবহাওয়াবিদ সাঈদ আহমদ চৌধুরী জানিয়েছেন, আগামীতে দুইদিন দিনে ও রাতে এমন তাপদাহ অব্যাহত থাকবে। তবে আসছে ৪৮ ঘণ্টায় কিছুটা পরিবর্তন হতে পারে।

তিনি আরো জানান, আগামী ২৭ এপ্রিল থেকে সিলেটে বৃষ্টির সম্ভাবনা থাকায় এ অঞ্চলে তাপমাত্রা বাড়ার এমন কোন সম্ভাবনা নেই। ২৭ তারিখ থেকে শুরু ৩ মে পর্যন্ত সিলেটে থেমে থেমে বৃষ্টি হবে এবং তাপমাত্রা কমবে বলেও জানান এ আবহাওয়াবিদ।

এদিকে আবহাওয়া অধিদপ্তরের দীর্ঘমেয়াদি পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, চলতি মাসে দেশের উত্তর ও উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলে একটি তীব্র তাপপ্রবাহ এবং অন্যত্র ১-২টি মাঝারি তাপপ্রবাহ বয়ে যেতে পারে। আর মে মাসে দেশে স্বাভাবিক বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা আছে। এ মাসে বঙ্গোপসাগরে ১-২টি নিম্নচাপ সৃষ্টি হতে পারে এবং এর মধ্যে একটি ঘূর্ণিঝড়ে রূপ নিতে পারে।

এ ছাড়াও মাসের প্রথম সপ্তাহের মাঝামাঝি সময়ে বাংলাদেশের উপকূলীয় অঞ্চলে ঘূর্ণিঝড় আঘাত হানতে পারে। এ ছাড়া, দেশের উত্তর, উত্তর-পূর্বাঞ্চল ও মধ্যাঞ্চলে ২-৩ দিন মাঝারি/তীব্র বজ্রঝড় (কালবৈশাখী) ও দেশের অন্যত্র ৩-৪ দিন হালকা/মাঝারি/বজ্রঝড় (কালবৈশাখী) হতে পারে। মে মাসে দেশের উত্তর ও উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলে ১-২টি তীব্র তাপপ্রবাহ বয়ে যেতে পারে বলে জানিয়েছে অধিদপ্তর।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত