রবিবার, ১৮ আগস্ট ২০১৯ ইং

হবিগঞ্জ প্রতিনিধি

০৮ মে, ২০১৯ ২৩:৩১

এবার হবিগঞ্জে চলন্ত বাস থেকে শিক্ষার্থীকে ফেলে দিলো হেলপার

মৌলভবাজারের শেরপুরে চলন্ত বাস থেকে সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র ওয়াসিম আব্বাসকে ধাক্কা দিয়ে ফেলে হত্যার রেশ না কাটতেই বুধবার একই ধরণের ঘটনা ঘটেছে হবিগঞ্জে।
 
হবিগঞ্জের বাহুবলে চলন্ত বাস থেকে জুবায়ের পাঠান নামে এক শিক্ষার্থীকে ফেলে দিয়ে হত্যার চেষ্টা চালিয়েছে বাসের হেলপার। গুরুতর আহত অবস্থায় জুবায়েরকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। আহত জুবায়ের বাহুবল অনার্স কলেজের বাংলা বিভাগের শিক্ষার্থী। তিনি মাধবপুর উপজেলার কৃষ্ণ নগর গ্রামের সমদ পাঠানের ছেলে।

বাহুবল অনার্স কলেজের অধ্যক্ষ আব্দুর রব শাহিন বলেন, প্রতিদিনের ন্যায় বুধবার সকালে জুবায়ের তার বাড়ি থেকে মিতালী পরিবহনের একটি বাস দিয়ে কলেজে আসছিলো। সকাল সাড়ে ১১ টার দিকে বাসটি বাহুবল কলেজ গেইটের সামনে এসে পৌছলে জুবায়ের বাসের হেলপারকে কলেজ গেইটের সামনে নামিয়ে দেয়ার অনুরোধ জানায়।

এ সময় বাসের হেলপারসহ অন্য স্টাফরা কলেজ গেইটের সামনে এসেই চলন্তবাস থেকে জুবায়ের পাঠানকে ধাক্কা দিয়ে ফেলে চলে যায়। এতে করে তার হাত পা-সহ শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাত পায়। পথচারীরা তাকে মহাসসড়কে পড়ে থাকতে দেখে উদ্ধার করে বাহুবল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়।

এ ঘটনার খবর পেয়ে বাহুবল অনার্স কলেজের শিক্ষার্থীদের মধ্যে উত্তেজনা ছড়িয়ে। এসময় শিক্ষার্থীরা মিলাতী বাসের স্টাফদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবিতে পরীক্ষা বাতিল করে শিক্ষার্থীরা মহাসড়ক অবরোধ করতে চাইলে তিনিসহ শিক্ষকরা তাদের শান্তনা দিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে নিয়ে আনেন।

বাহুবল মডেল থানার (ওসি) মাসুক আলী জানান, এ ঘটনার বিষয়ে আমি অবগত নই। ঘটনাটি যদি ঘটে থাকে তা হলে অবশ্যই জড়িতদের আইনে আওতায় আনা হবে।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত