মঙ্গলবার, ২৩ জুলাই ২০১৯ ইং

সিলেটটুডে ডেস্ক

১৬ জুন, ২০১৯ ০১:৪৯

প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে সিলেটের চার নেতাকে সংবর্ধণা দেবে কেন্দ্রীয় আ. লীগ

প্রতিষ্ঠাবর্ষিকীতে এবার তৃণমূলের ত্যাগী নেতাদের সংবর্ধিত করবে আওয়ামী লীগ। এরমধ্যে সিলেটের চার নেতাকেও সংবর্ধনা দেওয়া হবে। আগামী ২৩ জুন ৭০ তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালন করবে আ. লীগ।

শনিবার সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের সভায় সর্বসম্মতিক্রমে দুই নেতা ও আগের দিন মহানগর আওয়ামী লীগের সভায় আরও দুই নেতার নাম চুড়ান্ত করা হয়। এই চার নেতার নাম কেন্দ্রে পাঠানো হবে। এঁরা হলেন- কেন্দ্রীয় উপদেষ্টামন্ডলীর সদস্য অ্যাডভোকেট সৈয়দ আবু নছর ও জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট শাহ মোদাব্বির আলী এবং নগর আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি সিরাজ বক্স ও অন্যতম সদস্য আকবর আলী।

শনিবার (১৫ জুন) বিকেল সাড়ে তিনটায় সিলেট জেলা পরিষদ মিলনায়তনে সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী কমিটির জরুরি সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় আওয়ামী লীগের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালন ও সাংগঠনিক আলোচ্যসূচির আলোকে বিস্তারিত আলোচনা শেষে নানা কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়।

সভার শুরুতে বর্তমান সরকার কর্তৃক ২০১৯-২০ অর্থবছরে জনবান্ধব বাজেটের ঘোষণা দেয়ায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও অর্থমন্ত্রীকে ধন্যবাদ ও অভিনন্দন জানানো হয়। পরে সিলেট জেলা আওয়ামীলীগের সদস্য রুবী ফাতেমা ইসলাম, দক্ষিণ সুরমা উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য জিয়াউল ইসলাম শিশু, বিশ্বনাথ উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য আহমদ আলী ও সিলেট জেলা মহিলা লীগ নেত্রী বিভা রানী ধরের মৃত্যুতে শোকপ্রকাশ করে দাঁড়িয়ে এক মিনিট নিরবতা পালন করা হয়। এছাড়াও বিশ্বনাথ উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য আহমদ আলীর খুনীদের দ্রুত গ্রেফতার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানানো হয় সভায়।

সভায় বিস্তারিত আলোচনা শেষে আওয়ামী লীগের আগামী প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী যথাযথ মর্যাদায় ব্যাপকভাবে পালন করার নানা কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়। তন্মধ্যে র‌্যালি, আলোচনা সভা এবং জেলা আওয়ামী লীগের আওতাধীন প্রত্যেকটি ইউনিটে পৃথকভাবে প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালন করার সিদ্ধান্ত গৃহিত হয়। এছাড়াও সাংগঠনিক বিভিন্ন সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়। বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের ৭০তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে সংবর্ধিত প্রবীণ নেতা হিসেবে কেন্দ্রীয় উপদেষ্টামন্ডলীর সদস্য অ্যাডভোকেট সৈয়দ আবু নছর ও জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট শাহ মোদাব্বির আলীর নাম কেন্দ্রে প্রেরণের সিদ্ধান্ত সর্বসম্মতিক্রমে গৃহিত হয়।

সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি অ্যাডভোকেট লুৎফুর রহমানের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক শফিকুর রহমান চৌধুরীর পরিচালনয় সভায় বক্তব্য রাখেন সহ-সভাপতি মাহমুদ উস সামাদ চৌধুরী এমপি, আশফাক আহমদ, অ্যাডভোকেট শাহ ফরিদ আহমদ, অ্যাডভোকেট নিজাম উদ্দিন, অধ্যক্ষ সুজাত আলী রফিক, অ্যাডভোকেট নাসির উদ্দিন খান, হুমায়ুন ইসলাম কামাল, অ্যাডভোকেট শাহ মশাহিদ আলী, মোহাম্মদ আলী দুলাল, অ্যাডভোকেট খোকন কুমার দত্ত, রইছ আলী, ফারুক আহমদ, নাজনীন হেসেন, মুক্তিযোদ্ধা সাদ উদ্দিন আহমদ, অ্যাডভোকেট রনজিত সরকার, কবির উদ্দিন আহমদ, এমাদ উদ্দিন মানিক, জগলু চৌধুরী, মস্তাক আহমদ পলাশ, নুরুল আমিন, মোস্তাকুর রহমান মফুর, মফিজুর রহমান বাদশা, লুৎফুর রহমান, অ্যাডভোকেট বদরুল ইসলাম জাহাঙ্গীর, শহিদুর রহমান শাহিন, সামসুন্নাহার মিনু, অ্যাডভোকেট আজমল আলী, শাহাদৎ রহিম চৌধুরী, আব্দুল মুমিন চৌধুরী, আবদাল মিয়া, আবু জাহেদ।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত