সোমবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ইং

কমলগঞ্জ প্রতিনিধি

২৫ আগস্ট, ২০১৯ ১৭:৫৪

কমলগঞ্জে নারী চা শ্রমিক হত্যাকারী গ্রেপ্তার

মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জের আলীনগর চা বাগানে এক নারী শ্রমিকের অস্বাভাবিক মৃত্যুকে কেন্দ্র করে পুলিশ সন্দেহমূলক ভাবে এক আসামিকে আটক করেছিল। আটকের পর থানায় পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে সে নারী চা শ্রমিককে হত্যার কথা স্বীকার করেন।  

রোববার (২৫ আগস্ট) মৌলভীবাজার আদালতেও হত্রার কথা স্বীকার করে জবানবন্দী দেন। 

গত বৃহস্পতিবার (২২ আগস্ট) দিবাগত রাতে আলীনগর চা বাগানের পাক্কা লাইন শ্রমিক বস্তিতে দিপালী রায় (৪০) নামে নারী চা শ্রমিকের অস্বাভাবিক মৃত্যু হয়েছিল। শুক্রবার রাতে কমলগঞ্জ থানার এএসআই আব্দুল হামিদ ইসহাক মিয়া (৪০) নামে একজনকে সন্দেহমূলক ভাবে আটক করেছিল। ইসহাক মিয়া আলীনগর চা বাগানের মৃত সিকান্দর আলীর ছেলে। পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে তিনি দিপালীকে শ্বাসরুদ্ধ করে হত্যা করার কথা স্বীকার করেন।  

কমলগঞ্জ থানা সূত্রে জানা যায়, গত শুক্রবার ভোরে আলীনগর চা বাগানে নারী চা শ্রমিক তিন সন্তানের জননী দিপালী রায়কে নিজ ঘরে মৃত অবস্থায় পাওয়া যায়। ঘটনাটি রহস্যজনক ভেবে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য মরদেহ মৌলভীবাজার সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছিল। গোপনে পুলিশি তদন্ত শেষে শুক্রবার রাতে একই চা বাগানের চা শ্রমিক ইসহাক মিয়াকে পুলিশ আটক করে থানায় নিয়ে ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদ করে রোববার সকালে মৌলভীবাজার আদালতে প্রেরণ করলে সে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দী দিয়ে নারী চা শ্রমিককে হত্যায় দায় স্বীকার করেছে।

কমলগঞ্জ থানার এএসআই আব্দুল হামিদ বলেন, আদালতে আসামি স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দিতে বলেছে, ওই নারী চা শ্রমিকের সাথে তার অবৈধ সম্পর্ক ছিল। সম্প্রতি নারী আরো পুরুষের সাথে অবৈধ সম্পর্ক গড়ে তোলায় বৃহস্পতিবার রাতে তাকে পরিকল্পিতভাবে শ্বাসরুদ্ধ করে হত্যা করে ইসহাক।

কমলগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আরিফুর রহমান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, এ ঘটনায় একটি হত্যা মামলা রেকর্ড হলে সে মামলায় ইসহাক মিয়াকে আসামি করা হয়েছে।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত