শনিবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ইং

বড়লেখা প্রতিনিধি

১১ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ১৬:১২

বড়লেখায় আখড়া থেকে মূর্তিসহ জিনিসপত্র চুরি

মৌলভীবাজারের বড়লেখা উপজেলার সদর ইউনিয়নের নয়াগ্রাম শ্রী শ্রী গৌরাঙ্গ মহাপ্রভুর (আলাইর) আখড়ায় চুরির ঘটনা ঘটেছে। আখড়া থেকে দুটি মূর্তি, একটি দানবাক্স ও কিছু জিনিস চুরি হয়েছে।

মঙ্গলবার (১০ সেপ্টেম্বর) গভীর রাতে এ ঘটনা ঘটে।

স্থানীয় ও আখড়ার সেবায়েত সূত্রে জানা গেছে, আখড়ায় গ্রামের নন্দন চক্রবর্তী সেবায়েত হিসেবে আছেন। মঙ্গলবার রাত ৮টায় প্রতিদিনের মত নিত্য পূজার কাজ শেষে তিনি বাড়ি চলে যান। বুধবার সকালে গ্রামের সজল দে আখড়ায় গিয়ে দেখতে পান, কলাপসিবল গেট খোলা। গেটের কড়া ভাঙা। দুটো গেটের তালা মেঝেতে পড়ে আছে। ভেতরের জিনিসপত্র এলোমেলো। পূজার ঘরে প্রবেশ করে দেখতে পান, পিতলের তৈরি একটি গোপাল ও একটি রাধাকৃষ্ণের মূর্তি, সামনে রাখা কাঠের দানবাক্স এবং পূজায় ব্যবহৃত পিতল ও কাঁসার জিনিসপত্র নেই। পরে তিনি আখড়ার পরিচালনা কমিটির কোষাধ্যক্ষ সুদীপ চৌধুরীসহ নেতৃবৃন্দকে জানান।

খবর পেয়ে বুধবার (১১ সেপ্টেম্বর) সকাল ১০টার দিকে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তার (ওসি) নেতৃত্বে একদল পুলিশ ঘটনাস্থলে যায়।

এছাড়া চুরির খবর পেয়ে বড়লেখা উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান সোয়েব আহমদ, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. শামীম আল ইমরান, ভাইস চেয়ারম্যান তাজ উদ্দিন, স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান সিরাজ উদ্দিন, হিন্দু, বৌদ্ধ-খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি বিবেকানন্দ দাস নান্টু, সাধারণ সম্পাদক প্রকৃতি চৌধুরী, পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি বিধান চন্দ্র দাস, রঞ্জিত পাল ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।

নয়াগ্রাম শ্রী শ্রী গৌরাঙ্গ মহাপ্রভুর (আলাইর) আখড়া পরিচালনা কমিটির সভাপতি বিচিত্র দে বলেন, ‘মূর্তিসহ বেশ জিনিসপত্র চুরি হয়েছে। এগুলোর তালিকা করছি। চুরির ঘটনায় থানায় জিডি করব।’

বড়লেখা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. ইয়াছিনুল হক বলেন, ‘খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। তদন্ত চলছে। আখড়া কমিটির পক্ষ থেকে সাধারণ ডায়েরি করা হবে।’

আপনার মন্তব্য

আলোচিত