সোমবার, ২১ অক্টোবর ২০১৯ ইং

সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি

০১ অক্টোবর, ২০১৯ ২২:৪০

বিতর্কিতদের যারা দলে এনেছেন তাদের বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা: সুনামগঞ্জে হানিফ

ক্লাবগুলোতে ক্যাসিনো  ও জুয়ার প্রচলন করেছে বিএনপি, এমন মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল আলম হানিফ।

তিনি বলেছেন, ‘ক্যাসিনো হচ্ছে জুয়ার আসর এটি ক্লাবের সাথে সংযুক্ত এর সঙ্গে ক্লাব জড়িত, রাজনৈতিক দল জড়িত নয়। দুর্ভাগ্যজনকভাবে এটাকে রাজনৈতিক দলে চাপানোর চেষ্ঠা চলছে।  

তিনি বলেন, এর সঙ্গে যুবলীগের দু'একজন নেতা জড়িত থাকতে পারে। কিন্তু ক্যাসিনো যুবলীগের বিষয় না, এটা ক্লাবের বিষয়। এখানে দু'একজন যুবলীগের নেতা যেমন আছে তেমনি বিএনপির অনেক নেতাকর্মী আছে। লোকমান গ্রেপ্তার হয়েছে সে কোন দল করে? লোকমান বিএনপির চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়ার কাছের লোক। এই ক্লাবগুলোতে জুয়ার প্রচলন চালু করেছিলো বিএনপি।
 
মঙ্গলবার দুপুরে সুনামগঞ্জ সার্কিট হাউজে সাংবাদিকদের সাথে আলাপকালে তিনি এসব মন্তব্য করেন।
 
হানিফ আরও বলেন, এই জুয়াটা আমরা এর আগে দেখেছি বিএনপির সাদেক হোসেন খোকা, মির্জা আব্বাস, লোকমান, ফালু সাহেব তারা যখন ক্লাব পরিচালনা করছেন। তাদের সময় থেকে এই জুয়া প্রচলন শুরু হয়। এই জুয়াটা সম্প্রতি বিভিন্ন মাত্রায় এসেছে এবং যারা এর সঙ্গে জড়িত এরা সবসময় সরকারের আনুকুল্য নেয়ার জন্য বিভিন্ন সময় কৌশলে একটা ব্যানার করতে চায়। রাজনৈতিক দল ব্যবহার করতে চায়। তাদের এই সমস্ত অপকর্মকে জায়েজ করার জন্য আমরা দেখেছি সেই খালেদ ভুইয়া, জি কে শামীম এই সবগুলো কিন্তু বিএনপি থেকে আসা। এদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে। অপরাধী, সন্ত্রাসীদের কোন দল নেই তাদের ধরা পড়তে হবে।  

হানিফ বলেন, যে সমস্ত লোক অন্ যদল থেকে এসে আওয়ামী লীগে যোগদান করতে চায় বা যোগদান করেছেন তাদের ব্যপারে আমরা সবসময় সতর্ক করেছি। মানবতাবিরোধী, যুদ্ধপরাধীদেরকে দলে নেয়ার বিষয়ে কঠোর নিষেধাজ্ঞা আছে। এই সমস্ত নিষেধাজ্ঞা থাকার পরও যদি কোনো কোনো জয়াগায় এধরনের ব্যাক্টেরিয়া দলে নেয়া হয়েছে আমরা তদন্ত করে তাদের তালিকা করছি। তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে এবং এসমস্ত বিতর্কিত ব্যক্তিদেরকে যিনি দলে প্রবেশ করিয়েছেন তাদের বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এসময় উপস্থিত ছিলেন, আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আহমদ হোসেন, মিসবাহ উদ্দিন সিরাজ,  সংসদ সদস্য মুহিবুর রহমান, মোয়াজ্জেম হোসেন রতন, ড. জয়া সেনগুপ্তা, শামীমা আক্তার খানম ও জেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক ব্যারিষ্টার এম এনামুল কবির ইমন প্রমুখ।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত