রবিবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ইং

সিলেটটুডে ডেস্ক

০৯ জুন, ২০১৯ ১৪:৩০

মাছ ধরায় নিষেধাজ্ঞা, ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক অবরোধ জেলেদের

সাগরে মাছ ধরায় নিষেধাজ্ঞার প্রতিবাদে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক অবরোধ করেছেন জেলেরা।

রোববার (৯ জুন) সকাল ১০টা থেকে তারা ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের সীতাকুণ্ড উপজেলার বাংলাবাজার বাইপাস এলাকার সড়কে অবস্থান নিয়েছেন।

অবরোধের কারণে ঢাকা-চট্টগ্রাম এলাকায় যান চলাচল বন্ধ ছিল।

জেলেরা সড়কে অবস্থান করছে উল্লেখ করে সীতাকুণ্ড থানার ওসি মো. দেলোয়ার হোসেন বলেন,‘তাদের সরিয়ে নিতে পুলিশ ঘটনাস্থলে কাজ করছে।

স্থানীয়রা জানান, সকাল সাড়ে ৯টার দিকে ৩৮টি জেলে পল্লী থেকে আসা নারী-শিশুসহ সহস্রাধিক জেলে সড়কে অবস্থান নিয়েছে। প্রচণ্ড বৃষ্টি উপেক্ষা করে তারা সীতাকুণ্ড উপজেলা পর্যন্ত রাস্তার একপাশে জড়ো হয়েছে। সকাল ১০টার দিকে পুলিশ এসে তাদের সরিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করলে তারা রাস্তার দুপাশে এবং সড়কে অবস্থান নেয়।

জেলেরা পূর্ব ঘোষিত আল্টিমেটাম অনুযায়ী এ কর্মসূচি পালন করেছেন বলে জানা যায়।

এর আগে ১ জুন সাগরে মাছ ধরায় সরকারি নিষেধাজ্ঞার প্রতিবাদে চট্টগ্রাম প্রেসক্লাবে উত্তর চট্টলা উপকূলীয় মৎস্যজীবী জলদাস সমবায় কল্যাণ ফেডারেশন এক সংবাদ সম্মেলন করে। ওই সংবাদ সম্মেলনে ফেডারেশনের সভাপতি লিটন জলদাস ৭ দিনের মধ্যে এই সমস্যার সমাধান করার জন্য আল্টিমেটাম দেন।

অন্যথায় ৯ জুন থেকে মহাসড়ক অবরোধ করা ঘোষণা দেন। তার অংশ হিসেবে আজ রাস্তায় অবস্থান নিয়েছেন জেলেরা।

ওসি দেলোয়ার হোসেন বলেন, সড়কের পাশে এখনও জেলেরা অবস্থান করছে। তবে এখন যান চলাচল স্বাভাবিক হয়েছে। জেলেদের বুঝিয়ে সড়কের পাশে সরিয়ে দেওয়া হয়েছে।

প্রসঙ্গত, প্রতিবছর ২৩ মে থেকে ২৩ জুলাই মোট ৬৫ দিন সাগরে মাছ ধরার সরকারি নিষেধাজ্ঞা থাকে। অন্য বছর এই সময় ছোট কাঠের নৌকায় করে জেলেরা মাছ ধরতে পারত। কিন্তু এ বছর এসব ছোট ছোট নৌকার ক্ষেত্রেও কঠোর নিষেধাজ্ঞা দেওয়া হয়েছে।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত