মঙ্গলবার, ১৫ অক্টোবর ২০১৯ ইং

সিলেটটুডে ডেস্ক

০৫ অক্টোবর, ২০১৯ ১০:২৪

এরশাদের আসনে ভোটগ্রহণ চলছে

জাতীয় পার্টির প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের আসন হিসেবে পরিচিত রংপুর-৩ আসনের উপনির্বাচনে ১৭৫টি কেন্দ্রে একযোগে ভোটগ্রহণ শুরু হয়েছে। ছয় জন প্রার্থী এই আসনে এরশাদের উত্তরসূরী হিসেবে নির্বাচিত হওয়ার লড়াইয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন।

শনিবার (৫ অক্টোবর) সকাল ৯টা থেকে শুরু হয় এই আসনের ভোটগ্রহণ, একটানা চলবে বিকেল ৫টা পর্যন্ত। প্রতিটি কেন্দ্রেই ভোট নেওয়া হচ্ছে ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিনের (ইভিএম) মাধ্যমে।

লাঙ্গল প্রতীক নিয়ে জাতীয় পার্টির (জাপা) প্রার্থী রাহগির আলমাহি এরশাদ (সাদ এরশাদ), ধানের শীষ প্রতীক নিয়ে বিএনপি মনোনীত প্রার্থী রিটা রহমান, মোটরগাড়ি (কার) প্রতীক নিয়ে এরশাদের ভাতিজা স্বতন্ত্র প্রার্থী হোসেন মকবুল শাহরিয়ার, আম প্রতীক নিয়ে ন্যাশনাল পিপলস পার্টির প্রার্থী শফিউল আলম, মাছ প্রতীক নিয়ে গণফ্রন্টের প্রার্থী কাজী মো. শহীদুল্লাহ এবং দেয়াল ঘড়ি প্রতীক নিয়ে খেলাফত মজলিসের প্রার্থী মো. তৌহিদুর রহমান তাদের প্রচারণা শেষ করেছেন।

এছাড়া আওয়ামী লীগ প্রার্থী মো. রেজাউল করিম রাজু তার মনোনয়ন প্রত্যাহার করেছেন। বাতিল হয়েছে বাংলাদেশ কংগ্রেসের প্রার্থী মো. একরামুল হক ও স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. কাওছার জামানের মনোনয়ন।

এর আগে, উপনির্বাচন সামনে রেখে ৩ অক্টোবর ১৭৫টি কেন্দ্রে ইভিএম ব্যবহার করে ‘মক ভোটিং’ কার্যক্রমের আয়োজন করে নির্বাচন কমিশন। তবে সে আয়োজনে সাড়া মেলেনি ভোটারদের। বেশিরভাগ কেন্দ্রেই খুব অল্পসংখ্যক ভোটার উপস্থিত হয়েছিলেন অনুশীলন ভোট দিতে।

রংপুর সদরের এই আসনটিতে জাতীয় সংসদের জনপ্রতিনিধি নির্বাচন করবেন ৪ লাখ ৪২ হাজার ৭২ জন ভোটার। এর মধ্যে পুরুষ ভোটার ২ লাখ ২১ হাজার ৩১০ জন, নারী ভোটার ২ লাখ ২১ হাজার ৭৬২ জন।

এর আগে, শুক্রবার (৪ অক্টোবর) ইভিএমসহ নির্বাচনি সব সরঞ্জাম পৌঁছে দেওয়া হয়েছে কেন্দ্রগেুলোতে। এগুলো সংরক্ষণ করতে এদিন রাতেই নিরাপত্তা বাহিনী ও ভোটগ্রহণ কর্মকর্তারা অবস্থান নেন কেন্দ্রে।

রিটার্নিং কর্মকর্তা জি এম শাহাতাব উদ্দীন শুক্রবার বলেন, এই আসনের সব ভোটারকে তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করতে আমি উদাত্ত আহ্বান জানাচ্ছি। আমরা একটি নিরাপত্তা বলয় তৈরি করেছি। কোনো বিশৃঙ্খলা ঘটলে তা সঙ্গে সঙ্গে প্রতিহত করতে সব ব্যবস্থা আমরা নিয়েছি।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত