সোমবার, , ১০ ডিসেম্বর ২০১৮ ইং

নিজস্ব প্রতিবেদক

২৯ নভেম্বর, ২০১৮ ১৮:৩১

অর্থমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করে বিএনপিতে সমালোচিত ইনাম চৌধুরী

অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিতের বাসায় সৌজন্য সাক্ষাতে গিয়ে দলের ভেতরে সমালোচনার মুখে পড়েছেন সিলেট-১ আসনে বিএনপির প্রার্থী ইনাম আহমদ চৌধুরী।

এই সাক্ষাতকে সিলেটের রাজনীতির সম্প্রতির দৃষ্টান্ত হিসেবে অনেকে অভিহিত করলেও বিএনপির অনেক নেতাকর্মীই এই কাজকে সন্দেহের চোখে দেখছেন। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ইনাম আহমদের সমালোচনায় মেতে উঠেছেন তাঁরা।

বৃহস্পতিবার (২৯ নভেম্বর) সকাল সাড়ে ১০টার দিকে ইনাম আহমদ নগরীর ধোপাদিঘীরপাড়ে হাফিজ কমপ্লেক্সে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিতের বাসভবনে গিয়ে তাঁর দেখা করেন। এসময় সিলেট-১ আসনে আ. লীগের প্রার্থী ড. একে আব্দুল মোমেনের সাথেও কুশল বিনিময় করেন তিনি।

ইনাম চৌধুরীর এই সৌজন্য সাক্ষাত নিয়ে ফেসবুকে মহানগর বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক মিফতা সিদ্দিকী লিখেছেন-

দেশনেত্রীকে কারাগারে রেখে, নেতাকর্মীদের প্রতিনিয়ত নির্যাতনের মুখামুখি দেখে ও যারা আওয়ামী ফ্যাসিস্ট গোষ্ঠীর সাথে সৌহার্দ্যপূর্ণ সহাবস্থানের কথা চিন্তা করেন, আমি স্পষ্টভাবে মনে করি তাদের সাথে আমার চিন্তা ও ধ্যান-ধারণার মিল হতে পারে না। আমি গতকাল নির্বাচনী কার্যক্রমে সম্পৃক্ত হওয়াটাকে আমার স্পষ্ট ভুল সিদ্ধান্ত বলে মনে করছি। অনুতপ্ত বোধ করছি।

ছাত্রদল নেতা রাজ্জাক খান রাজ ফেসবুকে লিখেছেন-

দেশনেত্রীকে কারাগারে রেখে, নেতাকর্মীদের কারাগারে রেখে আওয়ামী ফ্যাসিস্ট সরকারের সাথে সৌহার্দ্যপূর্ণ সহাবস্থানের কথা চিন্তা করেন?
ছিঃ ছিঃ
এ কেমন রাজনৈতিক সম্প্রীতি?

তবে এই সাক্ষাতকে সিলেটের রাজনৈতিক সম্প্রীতির উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত বলে মনে করেন জগন্নাথপুর উপজেলার সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান সাংবাদিক মুক্তাদির আহমদ মুক্তা।
তিনি ফেসবুকে লিখেছেন-

এমন দৃশ্য ছড়িয়ে পড়ুক সর্বত্র ...

আবুল মাল আবদুল মুহিত আর ইনাম আহমদ চৌধুরী দুজনের রাজনৈতিক পরিচয় ভিন্ন হলেও পারিবারিক সম্পর্ক, চিন্তা-চেতনা,শিক্ষা আর পেশাগত কারণে দুজনের অবস্থান কাছাকাছি। একজন বর্তমান সরকারের অর্থমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য আর আরেকজন প্রাইভেটাইজেশন কমিশনের সাবেক চেয়ারম্যান (প্রতিমন্ত্রী) ও বিএনপির অন্যতম ভাইস চেয়ারম্যান। দুজনই সিলেটের দুটি আলোকিত পরিবারের সন্তান। ইনাম চৌধুরীর বড় ভাই, সাবেক পররাষ্ট্র সচিব ও আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা ফারুক চৌধুরী ছিলেন অর্থমন্ত্রী মুহিতের বন্ধু। ইনাম চৌধুরী, আবুল মাল আবদুল মুহিতকে বড় ভাই হিসেবে মান্য করেন। তিনি নির্বাচনে অংশ নিচ্ছেন জানাতে এবং দোয়া নিতে অর্থমন্ত্রীর বাসায় গিয়ে সাক্ষাৎ করেন। এসময় অর্থমন্ত্রীর ছোট ভাই, আওয়ামী লীগের প্রার্থী ড.এ কে এ মোমেন, বিএনপির প্রার্থী ইনাম চৌধুরী কে স্বাগত জানান। তিনজন দীর্ঘ সময় আলাপচারিতা করেন এবং সুন্দর ও শান্তিপূর্ণ পরিবেশে নির্বাচন অনুষ্ঠানের ওপর গুরুত্বারোপ করেন। এমন দৃশ্য ছড়িয়ে পড়ুক দেশের সর্বত্র। প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীরা যদি পারস্পরিক শ্রদ্ধা ও সম্মান প্রদর্শন করেন তাহলে নির্বাচনী মাঠ অনেকাংশেই স্বস্তিদায়ক হয়ে উঠবে।নতুন প্রজন্মের মধ্যে চালু হবে শ্রদ্ধা আর সম্প্রীতির সংস্কৃতি।

এদিকে, দলীয় নেতাকর্মীদের এই সমালোচনার প্রেক্ষিতে নিজের অবস্থান পরিষ্কার করতে আজ বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায় সংবাদ সম্মেলন ডেকেছেন ইনাম আহমদ চৌধুরী।

উল্লেখ্য, এবার বিএনপি থেকে দলের ভাইস চেয়ারম্যান ইনাম আহমদ চৌধুরী ও চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা খন্দকার আব্দুল মুক্তাদিরকে সিলেট-১ আসনে মনোনয়ন দেওয়া হয়েছে। দু'জনই বুধবার মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন। এদের মধ্য থেকে একজনকে বেছে নেবে দল।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত