COVID-19
CORONAVIRUS
OUTBREAK

Bangladesh

Worldwide

218

Confirmed Cases

20

Deaths

33

Recovered

1,455,399

Cases

83,656

Deaths

309,818

Recovered

Source : IEDCR

Source : worldometers.info

অনলাইন ডেস্ক

০১ মে, ২০১৮ ০৪:০৬

ভুল সম্পর্কে জড়িয়েছেন কি না বুঝবেন যেভাবে

সম্পর্ক মানেই দুজনের বোঝাপড়া। যে কোনও সম্পর্কে টানাপড়েন আসতেই পারে। দুজন মানুষ একসঙ্গে থাকতে গেলে মনোমালিন্য খুব স্বাভাবিক ব্যাপার। কিন্তু সেখানে ভালোবাসা, বিশ্বাস ও পরস্পরের প্রতি শ্রদ্ধাবোধ থাকলে খুব সহজেই এইসব ছোটখাটো সমস্যা পাশ কাটিয়ে যাওয়া যায়।

তবে অনেক সময় দেখা যায় সম্পর্কে এমন কিছু সমস্যা হাজির হয় যেগুলো কেউই এড়াতে পারেন না। ছোট ছোট বিষয়ে মতের অমিল হতে থাকে। বিভিন্ন কারণে কমে যেতে থাকে নিজেদের প্রতি শ্রদ্ধাবোধ ও ভালোবাসা। এমন সম্পর্ক খুব বেশিদিন টেনে নিয়ে যাওয়া উচিৎ নয়। কারণ ভুল সম্পর্কের পরিণাম শেষ পর্যন্ত খারাপই হয়।

কীভাবে বুঝবেন আপনি ভুল সম্পর্কে আছে?

১। দুজনের মতের অমিলগুলো কি খুব বড় ইস্যু হয়ে যাচ্ছে সবসময়? তবে আপনি ভুল সম্পর্কে জড়িয়ে আছেন। কারণ ছাড় দেওয়ার মানসিকতা ছাড়া সম্পর্ক টেনে নিয়ে যাওয়া সম্ভব নয়।
২। আপনি যেটা চাচ্ছেন সেটা বলার সুযোগ কী আপনার কখনোই থাকে না? সবসময় কী সঙ্গীর কথাই মেনে নিতে হয় আপনাকে? তবে আপনার আর এই সম্পর্ক টেনে না নেওয়াই ভালো!
৩। সঙ্গী কি সবসময় দায়িত্ব এড়াতে চায়? উত্তর যদি হ্যাঁ হয় তবে এ সম্পর্কের কোনও ভবিষ্যৎ নেই।
৪। কথায় কথায় কী সঙ্গী আপনার দোষ ধরতে ব্যস্ত? অতীত টেনে অথবা কোনও একটা ভুল খুঁজে বের করে সেটা নিয়ে সবার সামনে আপনাকে অপমান করে সে? তবে আপনি ভুল সম্পর্কে আছেন।
৫। সঙ্গী সবসময় আপনাকে সন্দেহ করে? ভুল করেও এই সম্পর্ক বেশিদূর এগুতে দেবেন না। কারণ সন্দেহ এমন একটি বিষ না সম্পর্ককে বিষাক্ত করে তোলে প্রতিনিয়ত।
৬। সঙ্গী প্রতারণা করছে? এটাকে ভুল ভেবে মাফ করে সম্পর্ক টানবেন না। মনে রাখবেন, সম্পর্কে বিশ্বাস না থাকলে সেখানে ভালোবাসা টেকে না।

ভুল সম্পর্কে আছেন জেনে কী করবেন?


মানুষ ভুল করতেই পারে। তবে সেই ভুলকে বেশিদূর টেনে নিয়ে গেলে সেটার চড়া মাশুল দিতে হবে আপনাকেই। মানসিক ও শারীরিকভাবে আপনাকে ধ্বংস করে দিতে পারে একটি বিষাক্ত ও ভুল সম্পর্ক। এটি আপনার মানসিক স্বাস্থ্যের উপর ফেলে দীর্ঘমেয়াদি প্রভাব। তাই ভুল সম্পর্কে আছেন সেটা জানতে পারলে সমাধানের জন্য খুব বেশি দেরি করবেন না। যত তাড়াতাড়ি সম্ভব সম্পর্ক থেকে বের হয়ে পড়ুন। প্রয়োজনে কাউন্সিলর অথবা বিশেষজ্ঞ কারোর সাহায্য নিতে পারেন।
তথ্য: হাফিংটন পোস্ট

আপনার মন্তব্য

আলোচিত