সিলেটটুডে ডেস্ক

০৪ জুলাই, ২০১৬ ১৬:১৩

গুলশানে হামলায় নিহতদের স্মরণে যুক্তরাজ্য গণজাগরণ মঞ্চের স্মরণসভা

বাংলাদেশের রাজধানী ঢাকার গুলশানের হলি আর্টিজান বেকারীতে নৃশংস মৌলবাদী হামলায় নিহতদের স্মরণে (৩ জুলাই) রবিবার বিকেল ৫ টায় লন্ডনের ট্রাফলগার স্কোয়ারে যুক্তরাজ্য গণজাগরণ মঞ্চের সমন্বয় ও আহ্বানে আয়োজন করা হয়েছিলো “সলিডারিটি উইথ দি ভিক্টিমস অব ঢাকা এটাক” শিরোনামে স্মরণ ও প্রতিবাদ সভা।

এই সভাতে অংশগ্রহণ করেন দেশ বিদেশের শতশত সমব্যথী ব্যক্তিবর্গ। স্মরণসভাতে বিশ্বের নানা দেশের ও নানা ভাষার মানুষেরা যোগ দেন এবং ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানান। সভাতে সাজিয়ে রাখা প্ল্যাকার্ডে আগত ব্যক্তিরা নানাবিধ মন্তব্য করে স্বাক্ষর করেন এবং তাঁদের ব্যথা ভাগ করে নেন সবার সাথে। এসময়ে আগত ব্যক্তিরা প্রদীপ প্রজ্বলন করেন এবং ঘণ্টা দেড়েক ধরে নানাবিধ প্ল্যাকার্ড নিয়ে তাঁদের প্রতিবাদ প্রকাশ করেন।

আগত অতিথিদের মধ্যে ছিলেন ইন্টারন্যাশনাল হিউম্যানিস্ট এন্ড এথিক্যাল ইউনিয়ন এর এন্ড্রু কোপসন, হিউম্যান রাইটস ওয়াচের সাউথ এশিয়া বিষয়ক অংশের ডিরেক্টর মিনাক্ষী চৌধুরী, এমনেস্টি ইন্টারন্যাশনালের ওরা ফ্রিমেন,কবি-সাহিত্যিক ও বামপন্থী রাজনীতিবিদ ডেভিড লি মরগান, টমাস (ইতালি), ফ্রাঙ্কেল (জার্মানি), এন্ড্রু (ফ্রান্স), সোফি(ব্রিটিশ),মেথিউ মোরিয়ার্টি (ব্রিটিশ),মানপ্রিত (ভারত), সুমিত চ্যাটার্জী (ভারত), অংচু (জাপান), ফুমিকো (জাপান), নিকো (সুইজারল্যান্ড), কমিউনিটি ব্যক্তিত্ব মুজিবল হক মনি, নারী অধিকার কর্মী ড. রুমানা হাশেম, সাংবাদিক বুলবুল হাসান ও সায়মা আহমেদ, যুক্তরাজ্য গণজাগরণ মঞ্চের মুখপাত্র অজন্তা দেব রায়, কর্মী কামরুল হাসান তুষার, ব্যারিস্টার নিঝুম মজুমদার, মালা সরকার, গোলাম রব্বানী, ফয়সাল ইফতেখার রাজা, মিতি, পিনাকী দেব রায়, রোমেল আলাউদ্দিন,মাহমুদ রহমান ইকবাল,  শরিফুল হাসান, মোহাম্মদ আরিফুর রহমান, চিত্র শিল্পী সিনথিয়া আরেফিন, নারী অধিকার কর্মী ব্যারিস্টার পিয়া মায়েনিন, এলজিবিটি অধিকার কর্মী ভ্যালেন্টিনা সাঈদ, ক্লেয়ার জাঙ্গারি সহ দেশ বিদেশের প্রচুর মানুষ।

এ ছাড়াও ট্রাফলগার স্কোয়ারে ঘুরতে আসা বিদেশি পর্যটকেরা সমাবেশ স্থলে এসে ভিক্টিমদের প্রতি সমবেদনা জানান ও তাদের সমর্থন অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশের সাথে আছে বলে জানান।
এই স্মরণসভায় সকলেই সম্মিলিতিভাবে এই মৌলবাদী অপশক্তিকে রুখে দেবার জন্য প্রতিজ্ঞাবদ্ধ হন এবং আইনের শাসন প্রতিষ্ঠার জন্য বাংলাদেশ সরকারের কাছে অনুরোধ জানান। এই সময় আগত অতিথিদের অনেকেই নিহতদের স্মরণে অশ্রুসজল হয়ে ওঠেন এবং সেখানে এক আবেগঘন পরিবেশের সৃষ্টি হয়।

গণজাগরণ মঞ্চ যুক্তরাজ্যের সদস্যরা এই স্মরণসভা আয়োজন সম্পর্কে বলেন, “আমরা ঢাকাতে হয়ে যাওয়া নৃশংস হত্যাকান্ডের তীব্র নিন্দা জানাই এবং মনে করি সামাজিক সচেতনতা ও প্রতিরোধ এবং সকল মত পার্থক্য ভুলে অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশে বিশ্বাসী সকলের একসাথে কাজ করা এই মুহূর্তে সবচেয়ে জরুরী। বাংলাদেশ সরকারকে এই মৌলবাদীদের বিষয়ে আরো অনেক বেশী সচেতন হবার ও এদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেয়ার আবেদন জানান তারা।

সভা শেষে বাংলাদেশের জাতীয় সঙ্গীত গান আগত সকল ব্যক্তিরা। মৌলবাদকে রুখে দিতে সকলেই প্রতিজ্ঞাবদ্ধ হন এবং একসাথে একতাবদ্ধ হয়ে কাজ করবার জন্য অঙ্গীকার করেন।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত