জুড়ী প্রতিনিধি

২৩ জুন, ২০২৪ ১৫:০৯

বাড়ি থেকে ডেকে এনে যুবককে হত্যা

মৌলভীবাজারের জুড়ীতে গভীর রাতে বাড়ি থেকে ডেকে এনে  আরমান (২২) নামের এক  যুবককে হত্যার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় ঘটনাস্থল থেকে ৪ জনকে আটক করেছে জুড়ী থানা পুলিশ।

নিহতের পরিবার ও জুড়ী থানা পুলিশ সূত্রে জানা যায়, শনিবার গভীর রাতে জায়ফর নগর ইউনিয়নের গরের গাও গ্রামের প্রবাসী সুমন আহমদের ছেলেকে পাশ্ববর্তী বাড়ির তানভীর আহমদ  ওরফে নাইফার মুন্না ঘুম থেকে ডেকে বাড়ির বাইরে নিয়ে যান। পরে তার সাথে থাকা জাহাঙ্গীর আলম ও তার বাবা ইয়াজ উদ্দিন সহ কয়েকজন মিলে তাকে ছুরিকাঘাত করে। এসময় আরমানের চিৎকারে প্রতিবেশীরা এসে উদ্ধার করে তাকে জুড়ী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যান।

এ সময় আরমান মিয়ার মামা রফিক মিয়া সিএনজি চালিয়ে আসলে তার উপর পুনরায় হামলা করে আহত করা হয়। উভয়কেই সংকটাপন্ন অবস্থায়  সিলেট ওসমানী হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক আরমান মিয়াকে মৃত ঘোষণা করেন। অপরজন গুরুতর আহত  সিলেট হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রয়েছে।
 
ঘটনাস্থল থেকে পুলিশ চার জনকে আটক করেছে বলে জানিয়েছেন জুড়ী থানার ওসি এস এম মাইন উদ্দিন।

তিনি বলেন, পূর্ব শত্রুতার জের ধরে এ ঘটনার সূত্রপাত হয়েছে  বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে। নিহত আরমানের গলার নীচে ছুরিকাঘাতের চিহ্ন রয়েছে। মরদেহ উদ্ধারকরে ময়নাতদন্তের জন্য সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

এ ঘটনায় আটককৃতরা হলেন, তানভীর আহমদ, জাহাঙ্গীর,  তার বাবা ইয়াজ উদ্দিন ও চাচা তাজ উদ্দিন।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত