Advertise

সিলেটটুডে ডেস্ক

২১ মে, ২০২০ ২২:০৮

ঘূর্ণিঝড় আম্পানে যশোরে এ পর্যন্ত ১২ জনের মৃত্যু

ঘূর্ণিঝড়ে ঘরের ওপর গাছ পড়ে যশোরে মা-মেয়েসহ ১২ জনের মৃত্যু হয়েছে। বুধবার রাতে যশোরের বিভিন্ন উপজেলায় এই দুর্ঘটনা ঘটে। নিহত ব্যক্তিদের মধ্যে যশোরের শার্শা উপজেলায় চারজন, চৌগাছায় দুজন, বাঘারপাড়ার একজন ও মণিরামপুর উপজেলার আছেন পাঁচজন।

পুলিশ ও উপজেলা প্রশাসন সূত্রে জানা গেছে, বুধবার রাতে শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড় আম্পানের সময় সবাই ঘরে অবস্থান করছিলেন। ঝড়ে ঘরের ওপরে গাছ পড়ে ১২ জন প্রাণ হারিয়েছেন।

নিহত ব্যক্তিরা হলেন যশোরের চৌগাছা উপজেলার চানপুর গ্রামের চায়না বেগম (৪৫) ও তাঁর মেয়ে রাজিয়া খাতুন (১৪), শার্শা উপজেলার সামটা জামতলা গ্রামের মোক্তার আলী (৬৫), মালোপাড়া গ্রামের গোপালচন্দ্র বিশ্বাস (৬৫), গোগা পশ্চিমপাড়ার শাহজাহানের স্ত্রী ময়না খাতুন (৩৫) ও মহিষাকুড়া গ্রামের মিজনুর রহমান (৬০), বাঘারপাড়া উপজেলার বুধুপুর গ্রামের আবদুস সাত্তারের স্ত্রী ডলি বেগম (৫০), মণিরামপুর উপজেলার পারখাজুরা গ্রামের খোকন দাস (৭০), তাঁর স্ত্রী বিজন দাসী (৬০), ওয়াজেদ আলী (৫০), তাঁর ছেলে ঈশা (১৫) ও জবেদ আলীর স্ত্রী আছিয়া বেগম (৭০)।

যশোরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার তৌহিদুল ইসলাম বলেন, ঘূর্ণিঝড়ে যশোরের বিভিন্ন উপজেলার ১২ জন নিহত হয়েছেন। নিহত ১২ জনের নাম-পরিচয়সহ ক্ষয়ক্ষতির তথ্য জানিয়ে যশোর জেলা পুলিশের পক্ষ থেকে ঢাকায় ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের কাছে প্রতিবেদন পাঠানো হয়েছে।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত