Advertise

মিনহাজ উদ্দিন, গোয়াইনঘাট

০৪ এপ্রিল, ২০২০ ২০:৪০

গোয়াইনঘাটের ত্রাণের খবরে ছুটছে মানুষ

সিলেটের গোয়াইনঘাটে করোনা সৃষ্ট দুর্যোগে মানুষগুলোর মধ্যে হাহাকার চলছে। ঘরে পর্যাপ্ত খাদ্য সামগ্রী এমনকি নগদ অর্থ না থাকায় নিম্ন এবং মধ্যবিত্ত পরিবারগুলোর অবস্থা একেবারে শোচনীয়। উপজেলার ব্যস্ততম ২টি পাথর কোয়ারি বন্ধ দীর্ঘদিন থেকে।

নিম্ন আয়ের মানুষের পাশাপাশি নিম্ন মধ্যবিত্ত এবং মধ্যবিত্ত পরিবারগুলো চরম ক্রান্তিকাল অতিক্রম করছে। বিশেষ করে গোয়াইনঘাটের ১০টি ইউনিয়নের দরিদ্র সীমার নিচের মানুষগুলোর কষ্টের যেন শেষ নেই। করোনাভাইরাস সংক্রমণরোধে সরকারের নির্দেশিত লকডাউনের কারণের পাশাপাশি কোয়ারীসহ কর্মক্ষেত্র গুলো বন্ধ থাকায় চরম অমানবিকতার মুখোমুখি হচ্ছে মানুষজন।

কোথাও একটু ত্রাণের খবর পেলেই জড়ো হয় শত শত ত্রাণ প্রত্যাশী মানুষ। একটু খাদ্য সামগ্রী কিংবা নগদ টাকা পেলে রাজ্যের হাঁসি ফুটে উঠে শ্রমিক অধ্যুষিত গোয়াইনঘাটের সবকটি এলাকায়। সরকারের প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী ইমরান আহমদ এমপি ও জেলা প্রশাসক সিলেটের নির্দেশনায় সরকারের তরফে গোয়াইনঘাটের ১০টি ইউনিয়নের এই পর্যন্ত দুই দফায় বরাদ্দ হয়েছে ৭৪ মেট্রিকটন চাল ও নগদ ২ লক্ষ ৩০ হাজার টাকা।

বরাদ্দকৃত এই অর্থ থেকে খাদ্য সামগ্রী কিনে এবং চাল প্যাকেটজাত করে প্রতিদিন দরিদ্র অসহায় ঘরবন্দি মানুষের বাড়ীতে বাড়ীতে ছুটে চলছেন গোয়াইনঘাটের উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান,উপজেলা নির্বাহী অফিসারসহ জনপ্রতিনিধিরা। প্রতিটি ইউনিয়নে নির্ধারিত ট্যাগ অফিসারদের উপস্থিতিতে বণ্টন হচ্ছে সরকারি বিভিন্ন ত্রাণও। সরকারি বে-সরকারী কিংবা কোন বিত্তবানদের তরফে উপজেলার কোথাও খাদ্য সামগ্রী কিংবা একটু ত্রাণ তৎপরতার খবর আসলেই হুমড়ি পড়ছে অসহায় মানুষজন।

গোটা উপজেলাই এই চিত্র অব্যাহত। নিম্ন এবং নিম্ন মধ্যবিত্ত পরিবারেও হাহাকার পরিলক্ষিত হচ্ছে। গোয়াইনঘাটে মোট হত দরিদ্র জনগোষ্ঠীর বিপরীতে সরকারের এই ত্রাণ তৎপরতা অপ্রতুল। প্রতিদিনই খাদ্য সামগ্রীর জন্য উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান কিংবা নির্বাহী অফিসার কার্যালয়ে সমাজের দরিদ্র জনগোষ্ঠীর মানুষজনের ত্রাণ প্রাপ্তির জন্য উপস্থিতি বেড়ে চলেছে।

প্রশাসন তরফে পর্যাপ্ত ত্রাণ রয়েছে এবং ঘরবন্দি অসহায় পরিবারের লোকজনদের মধ্যে উপস্থিত থেকে বিতরণ করা হচ্ছে জানিয়ে গোয়াইনঘাটের উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ নাজমুস সাকিব বলেন, করোনার সৃষ্ট দুর্যোগের কারণে ঘরবন্দি মানুষদের পর্যাপ্ত ত্রাণ তৎপরতা অব্যাহত রয়েছে,এই পরিস্থিতিতে কেউ যেন না খেয়ে না থাকে তা নিশ্চিত করা হচ্ছে।এদিকে সরকারে পাশাপাশি বেসরকারি এবং বিত্তবানদের উদ্যোগেও গোয়াইনঘাটের বিভিন্ন স্থানে খাদ্য ও ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ অব্যাহত রয়েছে। গোয়াইনঘাট উপজেলা আওয়ামীলীগের পক্ষ থেকে অচিরেই ঘরবন্দি ১২শত পরিবারের মধ্যে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করা হবে।

গোয়াইনঘাটের উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি মো. ইব্রাহীম আহমদ জানান, গোয়াইনঘাটের ঘরবন্দি মানুষজনকে সহায়তার উদ্যোগ হিসাবে আমরা উপজেলার ১০টি ইউনিয়নে ১২ শত পরিবারকে খাদ্য সামগ্রী পৌঁছে দেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছি।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত