সিলেটটুডে ডেস্ক

১৬ জুন, ২০২২ ১১:৩০

গোপালগঞ্জে আ.লীগের ঘাঁঁটিতে জামানত হারালেন নৌকার প্রার্থী

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জেলা গোপালগঞ্জ। সেই গোপালগঞ্জের মুকসুদপুর পৌরসভা নির্বাচনে জামানত হারিয়েছেন আওয়ামী লীগের প্রার্থী বীর মুক্তিযোদ্ধা আতিকুর রহমান মিয়া জামানত হারিয়েছেন। তিনি মুকসুদপুর উপজেলা অওয়ামী লীগের সভাপতি।

বুধবার (১৫ জুন) অনুষ্ঠিত মুকসুদপুর পৌরসভা নির্বাচনে আওয়ামী লীগ মনোনীত মেয়র প্রার্থী ৫ জন প্রার্থীর মধ্যে পঞ্চম হয়েছেন। হারিয়েছেন জামানত।

মুকসুদপুর উপজেলা নির্বাচন অফিস সূত্রে জানা গেছে, পৌরসভা নির্বাচনে স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী আশ্রাফুল আলম শিমুল জগ প্রতীক নিয়ে ৬ হাজার ১৫৪ ভোট পেয়ে বেসরকারিভাবে মুকসুদপুর পৌরসভার মেয়র নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী আহজ্জ্বাত মহসিন খিপু মিয়া মোবাইল প্রতীকে পেয়েছেন ৪ হাজার ৫৩৩ ভোট।

সাবেক মেয়র ও স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী সাজ্জাদ করিম মন্টু চামচ প্রতীকে ১ হাজার ৪৪৯ ভোট পেয়েছেন। স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী সাইফুল আহম্মেদ বিদ্যুৎ নারকেল গাছ প্রতীক নিয়ে পেয়েছেন ১ হাজার ৩২৩ ভোট। আওয়ামী লীগ মনোনীত মেয়র প্রার্থী আতিকুর রহামান মিয়া নৌকা প্রতীক নিয়ে ৬০৪ ভোট পেয়েছেন। বিজয়ী প্রার্থীর চেয়ে নৌকার প্রার্থী ৫ হাজার ৫৫০ ভোট কম পেয়েছেন।

মুকসুদপুর পৌরসভার রির্টানিং অফিসার আলাউদ্দিন আল মামুন জানান, যত ভোট কাস্ট হবে তার ৮ ভাগের ১ ভাগ ভোট না পেলে প্রার্থী জামানত হারাবেন। মুকসুদপুর পৌরসভার মোট ভোট ১৭ হাজার ৬২৭। এরমধ্যে কাস্ট হয়েছে ১৩ হাজার ৯৭৮টি ভোট।

মুকসুদপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক রবিউল আলম সিকদার বলেন, নেতাকর্মীদের নৌকার প্রার্থী আতিকুর রহমান মিয়া গুছিয়ে নিতে পারেননি। ৫ বছর তিনি মেয়র ছিলেন। এ সময়ের মধ্যেও তিনি নিজের মাঠ গোছাতে ব্যর্থ হয়েছেন। তিনি ২য় বার নৌকার প্রার্থী হন। দলের মধ্যে কিছু সমস্যা ছিলো। বিষয়টি নিয়ে দলীয় ফোরামে আলোচনা হবে।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত