রবিবার, , ২১ এপ্রিল ২০১৯ ইং

সাহাদুল সুহেদ, স্পেন

২১ জানুয়ারী, ২০১৯ ১৩:৫১

বায়ান্ন'র ভাষা শহীদদের স্মরণে বার্সেলোনায় স্থায়ী ফলক

বায়ান্ন'র ভাষা শহীদদের স্মরণে স্পেনে নির্মিত হচ্ছে শহীদ মিনারের ছবি সম্বলিত একটি স্থায়ী ফলক। স্পেনের কাতালোনিয়া প্রদেশের রাজধানী বার্সেলোনায় বাংলাদেশি অধ্যুষিত এলাকা রাভাল সংলগ্ন পেদ্রো চত্বরে (প্লাসা পেদ্রো) বার্সেলোনা সিটি করপোরেশন এ ফলক নির্মাণ করবে।

গত ১৪ জানুয়ারি (সোমবার) বার্সেলোনা সিটি করপোরেশনের কর্মকর্তাদের সাথে স্থানীয় প্রবাসী বাংলাদেশিদের এক মতবিনিময় সভায় সিটি কর্পোরেশনের উদ্যোগে স্থায়ী ফলক নির্মাণের সিদ্ধান্তের কথা জানানো হয়। আগামী ২১ ফেব্রুয়ারি প্রথমবারের মতো স্পেনে প্রবাসী বাংলাদেশিরা ভাষা শহীদদের স্মরণে নির্মিত স্থায়ী ফলকে পুষ্পস্তবক অর্পণ করে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালন করবেন।

সেই মতবিনিময় সভায় বার্সেলোনা সিটি কর্পোরেশনের কর্মকর্তাদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন নাতালিয়া মার্তিনেজ, বরখা মরদো ও জুদিত প্রস্ননা। স্থানীয় প্রবাসী বাংলাদেশিদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন আলাউদ্দিন হক, আওয়াল ইসলাম, উত্তম কুমার, মোহামেক কামরুল, আফাজ জনি, শফিক খান, মেহতা হক, হারুণ রশিদ প্রমুখ।

মতবিনিময় সভায় বার্সেলোনা সিটি কর্পোরেশনের কর্মকর্তারা জানান, সিটি কর্পোরেশন স্থানীয় প্রবাসী বাংলাদেশিদের নিয়ে যৌথভাবে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালন করবে। বিকেল ৫টায় পেদ্রো চত্বরে (প্লাসা পেদ্রো) আনুষ্ঠানিকভাবে ভাষা শহীদ স্মরণে স্থায়ী ফলক উদ্বোধন করা হবে। বার্সেলোনা সিটি করপোরেশেনের মেয়র এডা কলাউ প্রধান অতিথি হিসেবে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত  থাকার কথা রয়েছে।

বার্সেলোনা সিটি কর্পোরেশনের উদ্যোগে বায়ান্ন‘র ভাষা শহীদদের স্মরণে স্থায়ী ফলক নির্মাণের ঘোষণায় স্থানীয় প্রবাসী বাংলাদেশিদের মাঝে আনন্দ বিরাজ করছে। বার্সেলোনায় স্থায়ী শহীদ মিনার স্থাপনের জন্য দীর্ঘদিন ধরে কাজ করেছেন বার্সেলোনার প্রবাসী বাংলাদেশি মোহামেক কামরুল।

তিনি জানান, বার্সেলোনায় একটি স্থায়ী শহীদ মিনার করার লক্ষে আমি একসময় মানুষের দ্বারে দ্বারে ঘুরেছি স্বাক্ষরের জন্য। স্বাক্ষর সংগ্রহ করে উপযুক্ত কর্তৃপক্ষের কাছে জমা দিয়েছি। শহীদ মিনারের পক্ষে কথা বলার জন্য অনেক কটু কথা শুনেছি, অনেক ফতোয়া শুনেছি। কিন্তু আমি পিছপা হইনি। আজ আমার পরিশ্রম সার্থক। বার্সেলোনা সিটি করপোরেশনকে ধন্যবাদ জানাই। পাশাপাশি কৃতজ্ঞতা জানাই যারা আমাকে এ কাজে সহযোগিতা করেছেন, অনুপ্রেরণা যুগিয়েছেন।

তিনি আরো জানান, এ স্থায়ী ফলকে শহীদ মিনারের ছবি থাকবে এবং এর নীচে বাংলা ও কাতালান ভাষায় ১৯৫২ সালের ভাষা শহীদদের শ্রদ্ধা জানানোর কথা উল্লেখ থাকবে।

উল্লেখ্য, স্পেনে প্রবাসী বাংলাদেশিদের একটি ‘স্থায়ী শহীদ মিনার’ এর দাবি ছিলো দীর্ঘদিনের। প্রতিবছর ২১ ফেব্রুয়ারিতে তারা বিভিন্ন জায়গায় অস্থায়ী শহীদ মিনার স্থাপন করে ভাষা শহীদদের শ্রদ্ধা জানান। বার্সেলোনা সিটি কর্পোরেশনের উদ্যোগে পেদ্র চত্বরে (প্লাসা পেদ্রো) ভাষা শহীদদের স্মরণে একটি স্থায়ী ফলক নির্মাণ করার ঘোষণা দেয়ায় বাংলাদেশিরা স্থায়ীভাবে নির্ধারিত একটি জায়গা পেলেন, যেখানে প্রতি বছর আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালন ও ভাষা শহীদদের শ্রদ্ধা জানানো যাবে।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত