রবিবার, , ১৮ নভেম্বর ২০১৮ ইং

সিলেটটুডে ডেস্ক

০১ মে, ২০১৮ ২১:০০

নাটোর থেকে নিখোঁজ ছাত্রলীগ নেতা ৬ দিন পর ঢাকায় উদ্ধার

নাটোরের বাগাতিপাড়া উপজেলার ফাগুয়াড়দিয়াড় ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি টিপু সুলতান (২০) ছয়দিন নিখোঁজ থাকার পর অবশেষে সোমবার (৩০ এপ্রিল) রাতে তার সন্ধান মিলেছে। বর্তমানে তিনি ঢাকার কমলাপুরের মুগদা মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন।

টিপু সুলতানের বাবা শাহজাহান আলী ও বাগাতিপাড়া মডেল থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুল্লাহ আল মামুন এ খবর নিশ্চিত করেছেন।

শাহজাহান আলী মুঠোফোনে জানান, তিনি সোমবার রাতে মোবাইল ফোনে তার ছেলের ঢাকার একটি হাসপাতালে ভর্তির খবর পান। ঢাকার দক্ষিণ মুগদা এলাকার আওলাদ নামের এক ব্যক্তি তাকে হাসপাতালে ভর্তি করেছেন। এ খবর পেয়ে ওই রাতেই রওনা দেন ছেলের কাছে। সকাল সাতটায় সেখানে পৌঁছান।

মোবাইল ফোনে উদ্ধারকারী পথচারী আওলাদ জানান, টিপু সুলতানকে মুগদা মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালের পশ্চিম পাশের হাইওয়ে ব্রিজের পাশে অসুস্থ অবস্থায় পড়ে থাকতে দেখেন তিনি। এরপর তিনি তাকে নিকটস্থ মুগদা থানা পুলিশের সহযোগিতায় ওই হাসপাতালে সোমবার রাত সাড়ে নয়টার দিকে ভর্তি করেন।

টিপু সুলতান সাংবাদিকদের জানান, গত ২৪ এপ্রিল তিনি অসুস্থতা নিয়ে বাড়ি থেকে বের হয়ে নাটোর সদর হাসপাতালের উদ্দেশে বাগাতিপাড়া উপজেলার শাইলকোনা বাজার থেকে নাটোর শহরে যাচ্ছিলেন। পথিমধ্যে শহরের পুরাতন থানা (বর্তমানে সহকারী পুলিশ সুপারের কার্যালয়) সামনে তাকে বহনকারী অটোরিকশার গতিরোধ করে একটি সাদা মাইক্রোবাস। এসময় তাকে জোরপূর্বক গাড়িতে তুলে চোখ বেধে রুমাল চেপে অজ্ঞান করে অপহরণকারীরা।

এরপর দীর্ঘ সময় তার কোন জ্ঞান ছিল না। জ্ঞান ফিরে তিনি দেখেন একটি অন্ধকার ঘরে তাকে রাখা হয়েছে। সেখানে মুখ বাধা পাঁচজন লোক তাকে হাত-পা বেঁধে নির্যাতন করতো এবং তাকে অজ্ঞান করে রাখা হতো। এসময় অপহরণকারীরা তাকে 'রাজনীতি করার শিক্ষা' দেবে বলে হুমকি দিতে থাকে।

পরে চোখ খুলে দেওয়ার পরও তিনি কাউকে চিনতে পারেননি। গত পাঁচ দিন তাকে শুকনো রুটি ছাড়া কিছুই খেতে দেওয়া হয়নি। বন্দি থাকা অবস্থায় টিপু বুঝতে পারেনি তাকে কোথায় রাখা হয়েছিল। এরপর সোমবার রাতে তিনি জ্ঞান ফিরে দেখেন একটি হাসপাতালে শুয়ে আছেন।

মুগদা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এনামুল হক জানান, টিপু সুলতানকে রাস্তার পাশ থেকে অজ্ঞান অবস্থায় উদ্ধার করে স্থানীয় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, গত ২৪ এপ্রিল সকাল সাড়ে ১০টায় বাড়ি হতে বের হওয়ার পর থেকে উপজেলার ফাগুয়াড়দিয়াড় ইউনিয়ন ছাত্রলীগ সভাপতি টিপু সুলতান নিখোঁজ ছিলেন। এ ঘটনায় ২৬ এপ্রিল তার বাবা শাহজাহান আলী বাগাতিপাড়া মডেল থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেন। ২৮ এপ্রিল তার সন্ধানের দাবিতে স্থানীয় ছাত্রলীগ মানববন্ধন করে প্রশাসনকে ২৪ ঘণ্টার আল্টিমেটাম দেয়।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত