শুক্রবার, ১৩ ডিসেম্বর ২০১৯ ইং

সিলেটটুডে ডেস্ক

১২ আগস্ট, ২০১৯ ১৬:১৬

ঈদের নামাজ শেষে আওয়ামী লীগ-বিএনপি নেতাদের কোলাকুলি

যথাযথ ধর্মীয় ভাবগাম্ভীর্যের মধ্য দিয়ে চট্টগ্রামে উদযাপিত হচ্ছে পবিত্র ঈদুল আজহা। নামাজ শেষে কোলাকুলি করেন শিক্ষা উপমন্ত্রী মুহিবুল হাসান চৌধুরী ও মহানগর বিএনপির সভাপতি শাহাদাত হোসেন।

সোমবার (১২ আগস্ট) সকালে ঈদের নামাজ আদায়ের মধ্যে দিয়ে শুরু হয় ঈদুল আজহার আনুষ্ঠানিকতা।

নগরের জমিয়াতুল ফালাহ জাতীয় মসজিদ ময়দানে সকাল পৌনে আটটায় ঈদের প্রধান জামাত অনুষ্ঠিত হয়। এতে ইমামতি করেন মসজিদের পেশ ইমাম মোহাম্মদ আহমুদুল হক।

একই স্থানে সকাল পৌনে নয়টায় দ্বিতীয় ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হয়। নামাজের পর দেশ ও দেশের মানুষের কল্যাণ কামনা করে মোনাজাত অনুষ্ঠিত হয়।

প্রথম জামাতে বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষ নামাজ আদায় করেন। তাঁদের মধ্যে ছিলেন শিক্ষা উপমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মহিবুল হাসান চৌধুরী, চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন ও সাবেক মেয়র মীর মোহাম্মদ নাছির উদ্দিন, চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মোছলেম উদ্দিন আহমেদ, চট্টগ্রাম নগর বিএনপির সভাপতি শাহাদাত হোসেন প্রমুখ।

নামাজ শেষে সাধারণ মুসল্লি ও রাজনৈতিক দলের নেতা-কর্মীরা পরস্পরের সঙ্গে ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় ও কোলাকুলি করেন।

চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের ব্যবস্থাপনায় নগরের ১৬৫টি স্থানে ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হয়েছে। নামাজ আদায়ের পর নগরের বিভিন্ন অলিগলি, সড়ক, মাঠ ও বাসাবাড়ির সামনে পশু কোরবানি দেওয়া হয়।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত