COVID-19
CORONAVIRUS
OUTBREAK

Bangladesh

Worldwide

218

Confirmed Cases

20

Deaths

33

Recovered

1,518,783

Cases

88,505

Deaths

330,590

Recovered

Source : IEDCR

Source : worldometers.info

নিজস্ব প্রতিবেদক

২৬ মার্চ, ২০২০ ১৯:১৯

সিলেটে চিকিৎসাধীন সেই প্রবাসী করোনায় আক্রান্ত নন

সিলেটে শহীদ ডা. শামসুদ্দিন আহমদ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন যুক্তরাজ্যপ্রবাসীর (৫৫) করোনাভাইরাস কোভিড-১৯ এ আক্রান্ত নন। বৃহস্পতিবার (২৬ মার্চ) সন্ধ্যায় সিলেটটুডে টোয়েন্টিফোর ডটকমকে নিশ্চিত করেন হাসপাতালের আবাসিক চিকিৎসা কর্মকর্তা (আরএমও) সুশান্ত কুমার মহাপাত্র।

তিনি জানান, আজ সকালে সরকারের রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠান (আইইডিসিআর) থেকে পাঠানো করোনাভাইরাসের জন্য পাঠানো ব্লাড স্যাম্পল টেস্টের রিপোর্টে নেগেটিভ এসেছে। পরে তাকে দুপুরে রিলিজ দিয়ে দেয়া হয়েছে।

এর আগে গত শনিবার রাতে জ্বর,সর্দি-কাশি নিয়ে ওই প্রবাসী হাসপাতালে ভর্তি হন। তিনি সিলেটের ওসমানীনগর উপজেলার বাসিন্দা। ৪ মার্চ তিনি দেশে ফেরেন। দেশে ফেরার পর থেকে তিনি এসব উপসর্গে ভুগছিলেন। মঙ্গলবার রাতে তাঁর রক্তসহ নমুনা সংগ্রহ করা হয়। সেদিন রাতেই রাতেই নমুনা সংগ্রহ করে ঢাকায় আইইডিসিআরের উদ্দেশে পাঠানো হয়। বুধবার সকালে জাতীয় রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠানে (আইইডিসিআর) ওই ব্যক্তির নমুনা পৌঁছায়।

এদিকে বৃহস্পতিবার দুপুরে সিলেট ওসমানী বিমানবন্দর থেকে যুক্তরাজ্য ফেরত এক দম্পতিকে শহীদ ডা. শামসুদ্দিন আহমদ হাসপাতালের আইসোলেশন সেন্টারে পাঠায় সরকারের রোগতত্ত্ব, রোগনিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠান (আইইডিসিআর)। পরে তাদের মধ্যে ষাটোর্ধ্ব স্বামীকে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত সন্দেহে হাসপাতালে ভর্তি রেখে স্ত্রীকে হোম কোয়ারেন্টিনে পাঠায় হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ।

এর আগে বৃহস্পতিবার বেলা ১১টায় বিমানের একটি ফ্লাইটে লন্ডন-ঢাকা হয়ে তারা সিলেটে এসে পৌঁছান। বিমানের এ ফ্লাইটে মোট ৩১ জন যাত্রী ছিলেন।

এ ব্যাপারে সিলেটে শহীদ ডা. শামসুদ্দিন আহমদ হাসপাতালের আবাসিক চিকিৎসা কর্মকর্তা (আরএমও) সুশান্ত কুমার মহাপাত্র জানান, যাকে আমরা ভর্তি রেখেছি তার ব্লাড স্যাম্পল কাল আইইডিসিআরের পক্ষ থেকে সংগ্রহ করা হতে পারে। বর্তমানে তিনি আমাদের চিকিৎসাধীন আছেন।

এদিকে সিলেট বিভাগে গত ২৪ ঘণ্টায় কোয়ারেন্টিনে যুক্ত হয়েছেন ১৩৭ জন। আর কোয়ারেন্টিন থেকে মুক্তি পেয়েছেন ২০০ জন। স্বাস্থ্য অধিদপ্তর সিলেটের বিভাগীয় কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক ডা. আনিসুর রহমান বলেন, স্বাস্থ্য অধিদপ্তর সিলেটের বিভাগীয় কার্যালয় ১০ মার্চ থেকে কোয়ারেন্টিনের হিসাব রাখা শুরু করে। সিলেট বিভাগে এখন ১৫৯৭ জন হোম বা প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টিনে আছেন। তাদের মধ্যে সিলেটে ৭৩১ জন, সুনামগঞ্জে ২২৯ জন, হবিগঞ্জে ৪৭৩ জন এবং মৌলভীবাজারে ১৬৪ জন রয়েছেন।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত