শুক্রবার, , ১৮ জানুয়ারী ২০১৯ ইং

নিজস্ব প্রতিবেদক

০৪ জানুয়ারী, ২০১৯ ২০:৩১

আনন্দ আর আড্ডায় তারুণ্যের ইংরেজি নববর্ষ বরণ

বাংলা নববর্ষকে ঘিরে সারা দেশে নানা আয়োজন থাকলেও খ্রিষ্টীয় নববর্ষ উদযাপনে সংস্কৃতি কর্মীদের অংশগ্রহণ তেমন একটা চোখে পড়ে না। যদিও আমাদের জীবনযাত্রা অভ্যস্ত ইংরেজীসন বা তারিখে। সেটিকে প্রাধান্য দিয়েই সিলেটে দ্বিতীয় বারের মতো 'তারুন্য আনন্দ উৎসব' উদযাপন করলো "তারুণ্য" সাংস্কৃতিক  সংগঠন।

গান, আবৃত্তি, দলীয় নৃত্যসহ নানা আয়োজনের মধ্য দিয়ে এসময় অনুষ্ঠানস্থল পরিণত হয় সংস্কৃতি কর্মীদের মিলন মেলায়।

শুক্রবার (৪ জানুয়ারি) বিকালে নগরীর রিকাবীবাজারে মুক্তমঞ্চে শান্তির দূত পায়রা এবং বেলুন উড়িয়ে এ অনুষ্ঠানের উদ্বোধন করেন সিলেটের সাংস্কৃতিক অঙ্গনের বিশিষ্ট ব্যক্তিরা।

এসময় উপস্থিত ছিলেন সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোট সিলেটের সভাপতি আমিনুল ইসলাম চৌধুরী লিটন, সাধারণ সম্পাদক গৌতম চক্রবর্তী, সম্মিলিত নাট্য পরিষদের সভাপতি মিশফাক আহমেদ মিশু, সহ-সভাপতি উজ্জ্বল দাসসহ সিলেটের সংস্কৃতি অঙ্গনেরে অনেকে।

এমকা ফর মনিপুরী কালচার এন্ড আর্টস, নৃত্যাঞ্জলি, ছন্দ নৃত্যালয়, একদল ফিনিক্সসহ সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোট ও সম্মিলিত নাট্য পরিষদের  সংগঠন সমূহের পরিবেশনায় পুরো অনুষ্ঠানে দর্শকদের উপস্থিতি ছিলো অগণন। এসময় আবৃত্তি পরিবেশন করেন বিশিষ্ট আবৃত্তি শিল্পী আমিনুল ইসলাম চৌধুরী লিটন, নাজমা পারভিন।

ব্যতিক্রমধর্মী এই আয়োজনে উচ্ছ্বসিত আগত দর্শকরা জানান এ ধরনের শুদ্ধ সাংস্কৃতিক আয়োজন তরুণ প্রজন্মকে উৎসাহিত করবে। বিরত থাকবে বিপথগামীতা হতে।

আয়োজক সংগঠন তারুণ্য এর কর্ণধার অমিত ত্রিবেদী জানান নতুন কে স্বাগত জানাতেই আমাদের  আয়োজন হোক সেটা বঙ্গাব্দ কিংবা খ্রিস্টাব্দ। ভবিষ্যতে আরো  বিপুলভাবে আয়োজন থাকবে এই আনন্দ উৎসব ঘিরে বলেও জানান তিনি।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত