শুক্রবার, ১৫ নভেম্বর ২০১৯ ইং

সিলেটটুডে ডেস্ক

১৪ অক্টোবর, ২০১৯ ২০:২০

কে এই অর্থনীতিতে নোবেলজয়ী অভিজিৎ ব্যানার্জি

অর্থনাীতিতে সস্ত্রীক নোবেল পুরস্কার পেলেন বাঙালি বংশভুত অভিজিৎ বিনায়ক ব্যানার্জি। অমর্ত্য সেনের পরে দ্বিতীয় বাঙালি হিসেবে অর্থনীতিতে নোবেল পেলেন তিনি। একই সাথে আরো দুজন কে দেয়া হয়েছে এ পুরস্কার। দারিদ্র দূরীকরণ নিয়ে গবেষণার জন্যেই পুরস্কার দেওয়া হল তাদেরকে।

রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর, অমর্ত্য সেন ও ড. মুহাম্মদ ইউনূসের পর চতুর্থ বাঙালি হিসেবে নোবেল পুরস্কার অর্জন করলেন অভিজিৎ ব্যানার্জি। নোবেল বিজয়ের পর সকলেই প্রশ্ন- কে এই অভিজিৎ ব্যানার্জি?

অভিজিৎ ব্যানার্জি ভারতীয় বংশোদ্ভূত মার্কিন নাগরিক। তিনি যুক্তরাষ্ট্রের ম্যাসাচুসেটস ইনস্টিটিউট অব টেকনোলজির (এমআইটি) অধ্যাপক। তার স্ত্রী এস্থার দুফ্লো ফরাসি বংশোদ্ভূত মার্কিন নাগরিক। তিনিও এমআইটিতে অধ্যাপনা করেন।

১৯৬১ সালে ভারতের মুম্বাইয়ে জন্ম অভিজিৎ বিনায়ক বন্দ্যোপাধ্যায়ের। আটান্ন বছর বয়সি এ বাঙালি প্রাথমিক পড়াশোনা সারেন সাউথ পয়েন্ট স্কুলে। প্রেসিডেন্সি বিশ্ববিদ্যালয় থেকে অর্থনীতিতে স্নাতক হন ১৯৮১ সালে। তারপর স্নাতকোত্তর পড়তে চলে যান জহরলাল নেহেরু বিশ্ববিদ্যালয়ে। হাভার্ড বিশ্ববিদ্যালয়ে তার গবেষণার বিষয় ছিল ‘ইনফরমেশন ইকোনোমিক্স।’

জাতিসংঘেও গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব পালন করেছেন অভিজিৎ ব্যানার্জি। ডেভলপমেন্ট অ্যাজেন্ডা কর্মসূচিতে জাতিসংঘের সচিবের বিশিষ্ট প্রতিনিধি প্যনেলে ছিলেন তিনি। অর্থনীতি বিষয়ে তার লেখা চারটি বই বিশ্বজুড়ে সমাদৃত। তার মধ্যে ‘পুওর ইকোনোমি’ বইটি গোল্ডম্যান স্যাকস বিজনেস বুক সম্মান পায়।

অভিজিতের স্ত্রী এস্থার দুফ্লোর জন্ম ১৯৭২ সালে প্যারিসে। গবেষণা করেন এমআইটি থেকে। এস্থারের গবেষণার বিষয় ছিল, ‘দারিদ্র দূরীকরণে সামাজিক নীতি নির্ধারণ’। দীর্ঘদিন একসাথে কাজ করেছেন অভিজিৎ-এস্থার। এস্থার দুফ্লোর সঙ্গে তিনি বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন ২০১৫ সালে।

নোবেল পুরষ্কার ছাড়াও অভিজিৎ ফিন্যান্সিয়াল টাইমস এবং ম্যাককিনসে বিজনেস বুক অব দ্য ইয়ার পুরষ্কার পেয়েছেন।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত