আজ রবিবার, , ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮ ইং

সিলেটটুডে অনলাইন ডেস্ক

১৫ এপ্রিল, ২০১৮ ১৭:৫৯

চুলের বৃদ্ধিতে কার্যকরী মেহেদি হেয়ার প্যাক

চুল পড়ে যাওয়া বন্ধ করার পাশাপাশি চুলের বৃদ্ধি দ্রুত করতে চাইলে নিয়মিত মেহেদির হেয়ার প্যাক ব্যবহার করতে পারেন। এটি চুলের অতিরিক্ত তেলতেলে ভাব ও খুশকি দূর করে ঝলমলে করে চুল। চুলের গোড়া শক্ত করার পাশাপাশি মাথার ত্বকের পিএইচ লেভেল নিয়ন্ত্রণেও মেহেদির ভূমিকা রয়েছে। জেনে নিন মেহেদির কয়েকটি হেয়ার প্যাক কীভাবে তৈরি ও ব্যবহার করবেন।

মেহেদি ও নারকেল তেল:
আধা কাপ মেহেদি গুঁড়া ১/৪ কাপ কুসুম গরম পানিতে ভিজিয়ে রাখুন ১২ ঘণ্টা। চুল ভাগ করে নিয়ে ব্রাশের সাহায্যে লাগান মেহেদির পেস্ট। শাওয়ার ক্যাপ পরে ১ ঘণ্টা অপেক্ষা করুন। শ্যাম্পু দিয়ে ধুয়ে ফেলুন চুল। মাসে একবার এভাবে ব্যবহার করুন মেহেদি।   

মেহেদি ও আমলকী:
আধা কাপ মেহেদি গুঁড়ার সঙ্গে ২ টেবিল চামচ আমলকী গুঁড়া মিশিয়ে কুসুম গরম পানিতে ভিজিয়ে রাখুন ১০ থেকে ১২ ঘণ্টা। চুলের আগা থেকে গোড়া পর্যন্ত মিশ্রণটি লাগিয়ে অপেক্ষা করুন। ১ ঘণ্টা পর ধুয়ে ফেলুন শ্যাম্পু দিয়ে। এটিও মাসে একবার ব্যবহার করুন।

মেহেদি ও অ্যালোভেরা:
১ কাপ মেহেদি পাতা ও একটি অ্যালোভেরার পাতা বেটে নিন একসঙ্গে। অ্যালোভেরার পাতা ছোট টুকরা করে নিন বাটার আগে। মিশ্রণটি চুলে লাগিয়ে রাখুন আধা ঘণ্টা। শ্যাম্পু দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।

ডিম ও মেহেদি:
১ কাপ মেহেদি গুঁড়ার সঙ্গে ১ কাপ পানি, ১টি ডিম ও লেবুর রস মিশিয়ে রেখে দিন ১ ঘণ্টা। মিশ্রণটি চুলের আগা থেকে গোড়া পর্যন্ত লাগিয়ে রাখুন। কিছুক্ষণ পর ধুয়ে ফেলুন শ্যাম্পু দিয়ে।

জেনে নিন-
১। শুষ্ক চুল যাদের তারা খুব ঘন ঘন মেহেদি ব্যবহার না করলেই ভালো করবেন। এতে চুল অতিরিক্ত রুক্ষ হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকে।
২। মেহেদি সারারাত পানিতে ভিজিয়ে রেখে পরদিন ব্যবহার করতে পারেন।    
৩। মেহেদির হেয়ার প্যাক ব্যবহার করার আগে কপাল, ঘাড় ও কানের ত্বকে নারকেল তেল ঘষে নিন। এতে মেহেদির রং লেগে যাবে না।
৪। চুল শ্যাম্পু করার পর কন্ডিশনার ব্যবহারের প্রয়োজন নেই।
তথ্য: স্টাইলক্রেজ

আপনার মন্তব্য

আলোচিত