মঙ্গলবার, ২৩ জুলাই ২০১৯ ইং

সিলেটটুডে ডেস্ক

১৪ মার্চ, ২০১৯ ১৭:৩৫

‘শতবর্ষী নাট্যমঞ্চে নাট্যোৎসব’ কর্মসূচির ২য় দিনের কার্যক্রম সম্পন্ন

বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমি দেশের বিভিন্ন জেলায় অবস্থিত ৩৫টি শতবর্ষী নাট্যমঞ্চে আবারও সাংস্কৃতিক কর্মকান্ডের মাধ্যমে প্রাণচাঞ্চল্য ফিরিয়ে আনার লক্ষ্যে ‘বাংলাদেশের শতবর্ষী নাট্যমঞ্চে নাট্য-উৎসব ২০১৯’ কর্মসূচির উদ্যোগ গ্রহণ করেছে।

এরই অংশ হিসেবে সিলেটে জেলা শিল্পকলা একাডেমির আয়োজনে ২য় দিনের কর্মসূচি হিসেবে মণিপুরী রাজবাড়ী নাট মন্দির ও  মালনীছড়া চা বাগান নাট মন্দিরে বাংলাদেশের শতবর্ষী নাট্যমঞ্চে নাট্যোৎসবের আয়োজন করা হয়।

বৃহস্পতিবার (১৪ মার্চ) সকাল ১১টায় মণিপুরী রাজবাড়ী নাট মন্দির ও বিকাল ৫টায় মালনীছড়া চা বাগান নাট মন্দিরে নাটক প্রদর্শনী করা হয়।

আবু বকর মো. আল আমিনের সঞ্চালনায় দুটি স্থানেই থিয়েটার মুরারিচাঁদের ‘লেবার লাইন হল্ট’, থিয়েটার সিলেটের ‘আদিম পৃথিবীর আহ্বান’, জেলা শিল্পকলা একাডেমি রেপার্টরী নাট্যদলের ‘ঘরের শত্রু’ এবং থিয়েটার একদল ফিনিক্সের ‘শিকল’ নাট্য প্রযোজনাসমূহ পরিবেশন করা হয়। ২৮ মার্চ বিকাল ৫টায় বন্দর বাজারস্থ ব্রহ্ম মন্দিরে উক্ত আয়োজনের মধ্য দিয়ে কর্মসূচির সমাপ্তি হবে।

নাট্য প্রদর্শনীর পূর্বে সংক্ষিপ্ত আলোচনা পর্ব অনুষ্ঠিত হয়। জেলা কালচারাল অফিসার অসিত বরণ দাশ গুপ্তের সভাপতিত্বে আমন্ত্রিত অতিথির বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ নৃত্যশিল্পী সংস্থা সিলেটের সভাপতি অনিল কিষণ সিংহ, বীর মুক্তিযোদ্ধা ও নাট্যব্যক্তিত্ব ভবতোষ রায় বর্মণ, বাংলাদেশ মণিপুরী সাহিত্য সংসদের সভাপতি এ কে শেরাম, সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোট কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য শামসুল আলম সেলিম এবং জেলা শিল্পকলা একাডেমির নৃত্য প্রশিক্ষক শান্তনা দেবী।

বিকাল ৫টায় মালনীছড়া চা বাগান নাট মন্দিরে আলোচনা পর্বে জেলা কালচারাল অফিসার অসিত বরণ দাশ গুপ্তের সভাপতিত্বে আমন্ত্রিত অতিথির বক্তব্য রাখেন বীর মুক্তিযোদ্ধা ও নাট্যব্যক্তিত্ব ভবতোষ রায় বর্মণ, সাংবাদিক ও সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব আল আজাদ, বাংলাদেশ চা শ্রমিক ইউনিয়ন সিলেট ভ্যালী কার্যকরী পরিষদের সভাপতি রাজু গোয়ালা এবং মালনীছড়া চা বাগান পঞ্চায়েত কমিটির সভাপতি জীতেন সবর।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত