Advertise

সিলেটটুডে ডেস্ক

২৯ মার্চ, ২০২০ ২২:২১

চীনের র‍্যাপিড টেস্টিং কিট নিয়ে দেশে দেশে অভিযোগ

ছবি প্রতীকী

নভেল করোনাভাইরাস (কভিড-১৯) পরীক্ষায় বিভিন্ন দেশে চীনের পাঠানো র‍্যাপিড টেস্টিং কিট নিয়ে দেশে দেশে অভিযোগ ওঠেছে। দেশগুলোর অভিযোগ- ভুল ফলাফল দিচ্ছে এই কিট। তবে চীন এই অভিযোগ অস্বীকার করেছে।

চীনের র‍্যাপিড টেস্টিং কিট নিয়ে অভিযোগ করা দেশগুলোর মধ্যে আছে স্পেন, চেক প্রজাতন্ত্র, মালয়েশিয়া ও তুরস্ক।

গত সপ্তাহে স্পেনের সোসাইটি অব ইনফেকশাস ডিজিসেস অ্যান্ড ক্লিনিকাল মাইক্রোবায়োলজি তাদের ওয়েবসাইটে জানায়, চীন থেকে আসা নোভেল করোনাভাইরাসের র‍্যাপিড টেস্টিং কিটের ৭০ শতাংশের বেশি ‘ত্রুটিপূর্ণ’। এসব টেস্ট কিট চীনে ফেরত পাঠানো হবে বলেও জানায় স্পেন। ওইসময়ে স্পেনে চীন প্রায় ৯ হাজার র‍্যাপিড টেস্ট কিট পাঠিয়েছিল।

কভিড-১৯ মোকাবিলায় স্পেন সম্প্রতি চীন থেকে প্রায় ৪৭ কোটি ডলারের চিকিৎসা সরঞ্জাম কেনার সিদ্ধান্ত নিয়েছিল। এ সংক্রান্ত এক ক্রয়াদেশের আওতায় ভেন্টিলেটর, টেস্ট কিট ও ডিসপোসেবল গ্লোভস স্পেনে সরবরাহ করে চীনের চিকিৎসা সরঞ্জাম উৎপাদক প্রতিষ্ঠান। তবে স্পেনে অবস্থিত চীনের দূতাবাস দাবি করেছে, দেশটিতে পাঠানো এসব টেস্ট কিট ওই ক্রয়াদেশের আওতাভুক্ত নয়। স্পেনই বরং অনিবন্ধিত প্রতিষ্ঠান থেকে এসব পণ্য কিনেছে।

এদিকে চীনের স্থানীয় কিছু গণমাধ্যমের খবরে র‍্যাপিড টেস্টিং কিটের উৎপাদক প্রতিষ্ঠান শেনজেন বায়োইজি বায়োটেকনলজিকে দায়ী করা হয়েছে। খবরে বলা হয়, এ প্রতিষ্ঠানটির উৎপাদিত টেস্টিং কিটগুলো মাত্র ৩০ শতাংশ ক্ষেত্রে সঠিক ফলাফল দিচ্ছে। অর্থাৎ ৭০ শতাংশই ত্রুটিপূর্ণ।

তবে স্পেনের অভিযোগের পর বায়োইজি তাদের এক বার্তায় প্রতিষ্ঠানটির পণ্যের সাফাই গেয়ে দাবি করে, স্পেনের হাসপাতালগুলো হয়ত এসব টেস্ট কিটের সঙ্গে দেওয়া নির্দেশিকা অনুসরণ করছে না। এসব টেস্ট কিট ব্যবহারের ক্ষেত্রে নমুনা সংগ্রহের সময় আমাদের নির্দেশিকা কঠোরভাবে অনুসরণ করতে হবে। একইসঙ্গে প্রতিষ্ঠানটি স্পেনে ব্যর্থ হওয়া টেস্ট কিটগুলো ফিরিয়ে নিয়ে নতুন টেস্ট কিট পাঠানোর প্রতিশ্রুতি দিয়েছে।

এদিকে শেনজেন স্টক এক্সচেঞ্জ এরই মধ্যে প্রতিষ্ঠানটির বিরুদ্ধে তদন্ত শুরু করেছে। তবে বায়োইজি তাদের পণ্যকে নির্ভুল বলে দাবি করে বলেছে—এসব পণ্য যথাযথ কর্তৃপক্ষের ছাড়পত্র নিয়েই ইউরোপে পাঠানো হয়েছে।

এমন চিত্র অবশ্য স্পেনেই শুধু নয়। মালয়েশিয়া এবং চেক প্রজাতন্ত্রও সম্প্রতি চীনের টেস্ট কিট নিয়ে তাদের অভিযোগ জানিয়েছে। এসব টেস্ট কিটের ফলাফলের সত্যতা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছে দেশ দু’টি।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত